অভয়নগরে ইকবাল হত্যা মামলায় ১৭জনকে অভিযুক্ত করে চার্জশিট

charg shit
নিজস্ব প্রতিবেদক॥ অভয়নগর উপজেলার মাগুরা গ্রামের চিহ্নিত সন্ত্রাসী ইকবাল হোসেন হত্যা মামলায় চার্জশিট দিয়েছে পুলিশ। এতে যশোর শহরের সন্ত্রাসী ট্যাবলেট সোহেলসহ ১৭ জনকে অভিযুক্ত করা হয়েছে। অভিযুক্তরা হলো, একই উপজেলার মাগুরা গ্রামের জমির আলীর ছেলে রফিকুল ইসলাম রফিক ও সাখাওয়াত হোসেন, সতীশ মন্ডলের ছেলে সমির মন্ডল, মৃত ইসমাইল হোসেনের ছেলে এরশাদ আলী, ওয়াদুদ শেখের ছেলে ইয়াছিন, শুকুর আলীর ছেলে আলিম, সবদুল গাজীর ছেলে আলমগীর হোসেন, জিয়াডাঙ্গা গ্রামের মৃত মোকা মোল্যার ছেলে এনামুল হোসেন ও বিল্লাল হোসেন, জোহর আলীর ছেলে বাবুল, আতিয়ার মোল্যার ছেলে শহিদুল, প্রেমবাগ গ্রামের রুহুল গাজীর ছেলে রুবেল হোসেন, বনগ্রামের বাটুল মোড়লের ছেলে তুহিন, আতিয়ার মোল্যার ছেলে জামাল হোসেন, যশোর শহরের টিবি ক্লিনিক এলাকার মানিক মুন্সির ছেলে ট্যাবলেট সোহেল, সদর উপজেলার ইছালী গ্রামের মহিউদ্দিন সরদারের ছেলে রুবেল হোসেন, গাইদগাছি গ্রামের হাসান সরদারের ছেলে বাবু হোসেন।
সূত্রে জানাগেছে, ২০১৩ সালের ১০ নভেম্বর রাতে ইকবাল মাছের ঘের পাহারা দিতে যায়। রাত সাড়ে ৮টার দিকে সমির তার লোকজন নিয়ে ইকবালের উপর হামলা চালায়। হামলাকারীরা ইকবালকে কুপিয়ে হত্যা করে ফেলে দেয়। এ ব্যাপারে নিহতের পিতা রমজান আলী বিশ্বাস সমিরসহ ১৪ জনকে আসামি করে অভয়নগর থানায় মামলা করেন। এ মামলার তদন্তকালে পুলিশ রুবেল, বাবু ও জামালকে আটক করে। তারা ইকবাল হত্যার সাথে জড়িত থাকার কথা স্বীকার ও অপর ১৩ জনের নাম উল্লেখ করে আদালতে জবানবন্দি দেয়। চার্জশিটে রুবেল, জামাল ও বাবু আটক থাকলেও অন্যরা পলাতক রয়েছে বলে উল্লেখ করা হয়েছে।
উল্লেখ্য নিহত ইকবাল হোসেন মাগুরা গ্রামের শীর্ষ সন্ত্রাসী মেজবাউর রহমানের ভাই।

শেয়ার