১৫ মে থেকে যশোরের ১৮রুটে অনির্দিষ্টকালের পরিবহন ধর্মঘট

poribohon dhormo ghot
নিজস্ব প্রতিবেদক॥ ১৫ মে থেকে যশোরের ১৮টি রুটে বাস, মিনিবাস, ট্রাকসহ সকল প্রকার পরিবহন চলাচল অনির্দিষ্টকালের জন্য বন্ধ করে দেয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে যশোর জেলা সড়ক পরিবহন সমিতি।
১৪ মে’র মধ্যে মহাসড়ক থেকে নসিমন, করিমন, ভটভটি, ইজিবাইক, থ্রি হুইলারসহ অন্যান্য যানবাহন চলাচল বন্ধ না করলে ১৫ মে থেকে এই ধর্মঘট পালনের সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে। বুধবার সমিতির আরএন রোডস্থ বাস মালিক সমিতির কার্যালয়ে অনুষ্ঠিত জরুরি সভায় এ সিদ্ধান্ত নেয়া হয়।
এছাড়া সভায় গাড়ির চ্যাসিসসহ বিভিন্ন যন্ত্রাংশের উপর ভ্যাট, আয়কর কমানোর দাবি করা হয়েছে। সভায় সভাপতিত্ব করেন জেলা সড়ক পরিবহন সমিতির সভাপতি আলহাজ ইকরামুল ইসলাম চৌধুরী ইকু।
অন্যান্যের মধ্যে আলোচনা করেন সংগঠনের সাধারণ সম্পাদক আলী আকবর, যশোর বাস মালিক সমিতির সহ-সভাপতি আবুল কাসেম, যশোর আইডিবিএস’র সাধারণ সম্পাদক পবিত্র কাপুড়িয়া, জেলা মিনিবাস ও বাস মালিক সমিতির যুগ্ম সম্পাদক অসিম কুন্ডু, খাজুরা বাস মালিক সমিতির সাধারণ সম্পাদক হাসান জামাল, পরিবহন সংস্থা শ্রমিক সমিতির সভাপতি আজিজুল আলম মিন্টু, সাধারণ সম্পাদক মোত্তর্জা হোসেন, জেলা সড়ক পরিবহন শ্রমিক ইউনিয়নের সভাপতি মোহাম্মদ আলী, কোতোয়ালি থানার অফিসার্স ইনচার্জ (ওসি) এমদাদুল হক শেখ প্রমুখ। জেলা সড়ক পরিবহন সমিতির সাধারণ সম্পাদক আলী আকবর জানান, হাইকোর্টের রায় ও সরকারি সিদ্ধান্ত উপেক্ষা করে মহাসড়কে অবৈধ যানবাহন নসিমন, করিমন, আল সাধু ভটভটি, থ্রি হুইলারসহ বিভিন্ন যানবাহন চলাচল করছে। কিন্তু প্রশাসন এ ব্যাপারে কোন পদক্ষেপ নিচ্ছে না। অবৈধ যানবাহনের কারণে প্রতিদিন বহু মানুষ মারা যাচ্ছে, পঙ্গু হয়ে যাচ্ছে অসংখ্য।
অথচ যাত্রীর অভাবে বাস মালিকরা দিন দিন লোকসান গুনছে। সরকারকে প্রতি বছর ভ্যাট, ট্যাক্স, আয়কর দিচ্ছে বাস মালিকরা। কিন্তু সুযোগ নিচ্ছে অবৈধ যানবাহনের মালিকরা। অন্যদিকে, গাড়ির চ্যাসিস, টায়ার, টিউব, লুব্রিকেন্ট ওয়েল, খুচরা যন্ত্রাংশ, জ্বালানি তেলের মূল্য বেড়েছে বহু গুনে। এসবের উপর অর্পিত ট্যাক্স না কমালে রাস্তায় গাড়ি চালানো সম্ভব হবে না। ফলে প্রশাসন অবৈধ যানবহনের বিরুদ্ধে কোন ব্যবস্থা না নিলে আগামী ১৫ মে থেকে এ অঞ্চলের ১৮ রুটে পরিবহন চলাচল বন্ধ করে দেয়া হবে।

শেয়ার