বিয়ে ঠেকিয়ে প্রেমের জন্য তরুণীর মাথা ন্যাড়া!

gairl
সমাজের কথা ডেস্ক॥ এক বনরক্ষীকে ভালোবাসেন ‘আলালের ঘরের দুলালী’। কিন্তু সেই সম্পর্কতো আর মেনে নিতে পাড়েন না ‘আলাল’। সমাজে তো তার একটা সম্মান বলে কথা আছে। তাই মেয়ে ‘দুলালী’কে ‘ছোটলোক’ বনরক্ষীর কাছ থেকে ফেরাতে অন্যত্র বিয়ে ঠিক করেন তিনি।
কিন্তু মেয়েও একরোখা। বাবার রক্ততো! তাই নিজের প্রেমকে সমর্থন না দিয়ে উল্টো বিয়ে ঠিক করায় নিজের মাথা ন্যাড়া করে ফেলেন ‘দুলালী’।
জানা গেছে, ভারতের ছত্তিশগড়ের বিলাসপুরে। মেয়েটির এক বিবাহিত পুরুষের সঙ্গে প্রেম। লোকটি আবার স্থানীয় জঙ্গলের বনরক্ষী। তাই স্বাভাভিকভাবেই দুজনের সম্পর্ক মানতে নারাজ মেয়ের পরিবার। তারা অন্যত্র মেয়েটির বিয়ে ঠিক করে।
তাই নিরুপায় হয়ে মেয়েটি সিদ্ধান্ত নেয়, বিয়ের আগেই তার মাথা ন্যাড়া করে ফেলবে। যাতে করে হবু বরের বাড়ি থেকে বিয়েটা ভেঙে দেয়া হয়। সেইমতোই মাথা কামিয়ে ফেলেছে মেয়েটি। ‘যেন চুল যায় যাক প্রেমটাতো বাঁচলো!’
বি.দ্র. সংবাদে উল্লেখিত ‘আলাল’ ও ‘দুলালী’ দুটি নামই কাল্পনিক। ঘটনায় আসল চরিত্রের নাম জানাতে সমস্যা থাকায় কাল্পনিক নাম উল্লেখ করা হয়েছে।

শেয়ার