আজ মহান মে দিবস

9
নিজস্ব প্রতিবেদক॥ মেহনতী জনতার প্রত্যয় দীপ্ত ঐক্যের মহিমায় আত্মোৎসর্গের পথ বেয়ে আবার ফিরে এসেছে মে দিবস। আজ পয়লা মে। মহান মে দিবস অর্থাৎ দুনিয়ার মজদুর এক হও সেøাগান দেয়ার দিন। বিশ্বব্যাপী শ্রমজীবীদের আন্দোলন-সংগ্রাম ও অধিকার আদায়ের অনুপ্রেরণার দিন। মে দিবস উপলক্ষে আজ সরকারি ছুটির দিন।
আজ থেকে ১২৮ বছর আগে ১৮৮৬ সালের ১ মে যুক্তরাষ্ট্রের শিকাগো শহরের হে মার্কেটে শ্রমের উপযুক্ত মূল্য এবং দৈনিক আট ঘণ্টা কাজের দাবিতে আন্দোলনরত শ্রমিকদের ওপর পুলিশ গুলি চালালে অনেক শ্রমিক হতাহত হন। এ আত্মত্যাগ ও রক্তস্নাত ঘটনার মধ্য দিয়ে দৈনিক কাজের সময় আট ঘণ্টা প্রতিষ্ঠার সংগ্রামের ঐতিহাসিক বিজয় হয়। শ্রমিক শ্রেণীর প্রাপ্য অধিকার ও স্বার্থ রক্ষার জন্য, শোষণের বিরুদ্ধে প্রতিরোধ এবং আত্মত্যাগের যে গৌরবময় ইতিহাস সৃষ্টি হয়েছিল তা অনাদিকাল ধরে বিশ্বের সকল শ্রমিকের কাছে স্বর্ণজ্জ্বল হয়ে থাকবে। শিকাগোর শ্রমিক আন্দোলনের সেই মহান নেতা পারসন্স ফাঁসির মঞ্চে দাঁড়িয়ে বলে গেছেন, আমাদের প্রাণ উৎসর্গ করছি পৃথিবীর সকল মানুষের দাবি প্রতিষ্ঠার জন্য।
১৮৮৯ সালে প্যারিসে দ্বিতীয় আন্তর্জাতিক শ্রমিক সম্মেলনে দিবসটিকে ‘মে দিবস’ হিসেবে পালনের সিদ্ধান্ত হয়। সেই থেকে দিনটি মহান মে দিবস হিসেবে দেশে দেশে পালিত হয়ে আসছে। আন্তর্জাতিক শ্রম সংস্থা আইএলও প্রতিষ্ঠাকাল থেকেই শ্রমিকের এ দাবিকে আইনে পরিণত করেছে। তবে দুঃখের বিষয় হচ্ছে যাদের অধিকার প্রতিষ্ঠার দিন আজ বাংলাদেশের সেইসব শ্রমজীবী মানুষের কাছে দিনটির তাৎপর্য আজও ভালভাবে পৌঁছায়নি।

শেয়ার