বাগেরহাটে প্রচণ্ড তাপদহে ১ মাসে ২ হাজার ৭৬১ জন ডায়রিয়ায় আক্রান্ত ॥ ৮২টি মেডিকেল সতর্কাবস্থায়

dairia akranto
বাগেরহাট প্রতিনিধি॥ বাগেরহাটে প্রচন্ড তাপদাহে ডায়রিয়ায় আক্রান্ত হচ্ছে মানুষ। আর এই রোগীর সংখ্যা বাড়ছে প্রতিদিন। গত ২৪ ঘন্টায় বাগেরহাটের ৯টি উপজেলায় ৩৯ জন ডায়রিয়ায় আক্রান্ত হয়েছেন। গত ১ মাসে এর সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ২ হাজার ৭৬১ জন। জেলার ৯টি উপজেলায় ৮২টি মেডিকেল টিম সতর্ক অবস্থায় রাখা হয়েছে বলে সিভিল সার্জন অফিস সুত্রে জানা যায়।
উপকূলীয় অঞ্চল জুড়ে গত কয়েকদিন ধরে প্রচন্ড তাপদাহ বয়ে যাচ্ছে। এ অবস্থায় অসহায় দরিদ্র, দিনমজুর আর নিম্নআয়ের মানুষ বেশি কষ্ট পাচ্ছেন। জীবন-জীবিকার তাগিদে তারা বৈশাখের খরতাপ উপো করে হাড়ভাঙা পরিশ্রমে বাধ্য হচ্ছেন। প্রচন্ড গরমে নানা বয়সের মানুষ পানিবাহিত রোগে আক্রান্ত হচ্ছে। ডায়রিয়ায় আক্রান্ত রোগীদের বড় একটি অংশই শিশু। প্রচন্ড গরমের মধ্যে আবার জেলার বিভিন্ন উপজেলায় বিশুদ্ধ খাবার পানির সংকট দেখা দিয়েছে। বাগেরহাট সিভিল সার্জন অফিস সুত্রে জানা গেছে, গত ২৮ মার্চ থেকে ২৮ এপ্রিল পর্যন্ত জেলার ৯টি উপজেলায় ২ হাজার ৭৬১ জন ডায়রিয়ায় আক্রান্ত রোগী হাসপাতালে চিকিৎসা সেবা নিয়েছে। এরমধ্যে বাগেরহাট সদরে ১৩০, কচুয়ায় ৪২৪, রামপালে ৪৮২, চিতলমারীতে ৩৮১, শরণখোলায় ২৫৯, ফকিরহাটে ২০৮, মোল্লাহাটে ২২২, মংলায় ১৭০ ও বাগেরহাট সদর হাসপাতালে ৪২৯ জন ডায়রিয়ায় আক্রান্ত হয়েছে। একটি সুত্র দাবী করেছে, এ হিসাব শুধু সরকারী ভাবে চিকিৎসা নেয়া রোগীদের। এর বাইরেও অনেক রোগী বিভিন্ন বেসরকারী কিনিক, হাসপাতাল ও স্থানীয় চিকিৎসকদের নিকট থেকে চিকিৎসা গ্রহন করেছে। বাগেরহাটের ডেপুটি সিভিল সার্জন ডা. এএফএম রফিকুল হাসান জানান, প্রচন্ড গরমের কারনে ডায়রিয়ার প্রকোপ বাড়ছে। ডায়রিয়ায় আক্রান্তদের প্রয়োজনীয় সব ধরনের চিকিৎসা সেবা ও বিনামূল্যে ওষুধ সরবারহ করা হচ্ছে। জেলার ৯উপজেলার ৮২টি মেডিক্যাল টিম সতর্ক অবস্থায় রাখা হয়েছে। তাছাড়া এই মুহুর্ত পর্যন্ত ডায়রিয়ায় আক্রন্তদের চিকিৎসা সেবা দেয়ার জন্য প্রয়োজনীয় ঔষধ ও উপকরণ মজুদ রয়েছে।

শেয়ার