যশোরে গ্রুপ থিয়েটার ফেডারেশনের নির্বাচন সম্পন্ন ॥ লাকী চেয়ারম্যান আকতার সেক্রেটারি জেনারেল

grop theter fedaration
নিজস্ব প্রতিবেদক ॥
শনিবার যশোরে উৎসবমুখর পরিবেশে বাংলাদেশ গ্র“প থিয়েটার ফেডারেশানের নির্বাচন সম্পন্ন হয়েছে। এতে বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নাট্যব্যক্তিত্ব লিয়াকত আলী লাকী পুনরায় সভাপতিমন্ডলীর চেয়ারম্যান নির্বাচিত হন। সেক্রেটারি জেনারেল পদে আকতারুজ্জামান ৮৯ ভোট পেয়ে নির্বাচিত হয়েছেন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থী পেয়েছেন কামাল বায়েজিদ ৭৪ ভোট। নির্বাচন শেষে শনিবার রাতে এ ফলাফল ঘোষণা করা হয়।
এদিকে সবচেয়ে বেশি ভোট পেয়ে নির্বাচিত হয়েছেন সভাপতিমন্ডলীর সদস্য পদে বিবর্তন যশোরের সভাপতি সানোয়ার আলম খান দুলু। তিনি পেয়েছেন ১৭৬ ভোট।
নির্বাচনে ৪৩টি পদের মধ্যে বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হন ১৫ জন। বাকি ২৮টি পদে ৬৮ জন প্রতিদ্বন্দ্বিতা করেন। ২২৮ জন ভোটারের মধ্যে ২০৮ জন ভোটাধিকার প্রয়োগ করেন।
প্রধান নির্বাচন কমিশনার এসএম মহসীন জানান, নির্বাচিতরা হলেন, সভাপতিমন্ডলীর চেয়ারম্যান লিয়াকত আলী লাকী (বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায়), সভাপতিমন্ডলীর সদস্য (ঢাকা মহানগর) ঝুনা চৌধুরী (১৫৬), আব্দুল হালিম আজিজ (১২০), সভাপতিমন্ডলীর সদস্য (ঢাকা বিভাগ) পাপিয়া সেলিম (১২০), সভাপতিমন্ডলীর সদস্য (চট্টগ্রাম বিভাগ) সুচরিত দাস খোকন (১২১), সভাপতিমন্ডলীর সদস্য (রাজশাহী বিভাগ) তৌফিক হাসান ময়না (বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায়), সভাপতিমন্ডলীর সদস্য (রংপুর বিভাগ) শাহজাহান শাহ্ (বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায়), সভাপতিমন্ডলীর সদস্য (খুলনা বিভাগ) সানোয়ার আলম খান দুলু (১৭৬), সভাপতিমন্ডলীর সদস্য (সিলেট বিভাগ) অণিরুদ্ধ কুমার ধর শান্তনু (১৬০), সভাপতিমন্ডলীর সদস্য (বরিশাল বিভাগ) সৈয়দ দুলাল (বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায়), সেক্রেটারি জেনারেল আকতারুজ্জামান ৮৯, অ্যাসিস্ট্যান্ট সেক্রেটারি জেনারেল চন্দন রেজা (বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায়), সম্পাদক (অনুষ্ঠান) কামরুন নূর চৌধুরী (১১০), সম্পাদক (অর্থ) মীর জাহিদ হাসান (১২৮), সম্পাদক (দপ্তর) মোরশেদুল আলম (বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায়), সম্পাদক (প্রকাশনা) হাফিজুর হরমান সুরুজ (১০৯), সম্পাদক (প্রশিক্ষণ) ফয়েজ জহির (বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায়), সম্পাদক (প্রচার) মাসুদ আলম বাবু (১২৫), সম্পাদক (গবেষণা ও তথ্য সংরক্ষণ) জাহিদ রিপন (বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায়), সম্পাদক (আন্তর্জাতিক) চঞ্চল সৈকত (বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায়), সাংগঠনিক সম্পাদক (ঢাকা মহানগর) আহমেদ গিয়াস (৬০), সাংগঠনিক সম্পাদক (ঢাকা বিভাগ) জাহাঙ্গীর আলম ঢালী (১৪), সাংগঠনিক সম্পাদক (চট্টগ্রাম বিভাগ) রমিজ আমম্মেদ (০৮), সাংগঠনিক সম্পাদক (রাজশাহী বিভাগ) মমিন বাবু (১৪), সাংগঠনিক সম্পাদক (রংপুর বিভাগ) রাজ্জাক মুরাদ (১৫), সাংগঠনিক সম্পাদক (খুলনা বিভাগ) নাজিম উদ্দিন জুলিয়াস (বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায়), সাংগঠনিক সম্পাদক (বরিশাল বিভাগ) বাসুদেব ঘোষ (বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায়), সাংগঠনিক সম্পাদক (সিলেট বিভাগ) মোহাম্মদ জালাল উদ্দিন রুমী (১১), কেন্দ্রীয় পরিষদ সদস্য (ঢাকা মহানগর) জিয়াউল হাসান জিয়া (৪৬), শেখ শাফায়েতুর রহমান (৩০), খন্দকার আনোয়ারুল ইসলাম (২৮) কেন্দ্রীয় পরিসদ সদস্য (ঢাকা বিভাগ) আমিনুর রহমান ফরিদ ও হুমায়ুন ফরিদ (বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায়), কেন্দ্রীয় পরিষদ সদস্য (চট্টগ্রাম বিভাগ) ফরিদুল করিম পিন্টু (১৫), তাপস রক্ষিত (১৪), শাহজাহান চৌধুরী (১৩), কেন্দ্রীয় পরিষদ সদস্য (রাজশাহী বিভাগ) মিজানুর রহমান (২২), এম ববি খান (১৫), কেন্দ্রীয় পরিষদ সদস্য (খুলনা বিভাগ) আনোয়ার হোসেন (১৪), শাহীন সিদ্দিকী (১৩), শরীফ খান (১৩), কেন্দ্রীয় পরিষদ সদস্য (রংপুর বিভাগ) বাবু লাল চৌধুরী (১২), খন্দকার আব্দুল মজিদ হিরো (১১), অনুপম মনি (১০), কেন্দ্রীয় পরিষদ সদস্য (রবিশাল বিভাগ) কাজল ঘোষ ও মিজানুর রহমান (বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায়), কেন্দ্রীয় পরিষদ সদস্য (সিলেট বিভাগ) দেলওয়ার হামিদ দিনু (১০) ও হাবিবুর রহমান শহীদ (০৮)।
এছাড়া কেন্দ্রীয় পরিষদ সদস্য (রাজশাহী বিভাগ) পদে আব্দুল মান্নান ও কামার উল্লাহ সরকার কামাল ১৪ করে ভোট পাওয়ায় পরবর্তীতে সিদ্ধান্ত নেয়া হবে বলে প্রধান নির্বাচন কমিশনার জানান। সহকারী নির্বাচন কমিশনার ছিলেন বিপ্লব প্রসাদ, হারুন-অর-রশিদ ও তাপস সরকার।

শেয়ার