তেঁতুল হুজুরকে ক্ষমা চাইতে হবে

sahara
সমাজের কথা ডেস্ক॥ মুক্তিযুদ্ধে এ দেশের নারীরা যেমন সশস্ত্র যুদ্ধ করেছেন, তেমনি এদেশের অর্থনৈতিক মুক্তি আন্দোলনেও তারা সক্রিয় ভূমিকা রেখে চলেছেন বলে জানিয়েছেন বিগত মহাজোট সরকারের স্বরাষ্ট্র ও টেলিযোগাযোগমন্ত্রী, সংসদ সদস্য, আওয়ামী লীগের উপদেষ্টামণ্ডলীর সদস্য অ্যাডভোকেট সাহারা খাতুন।

তিনি বলেন, হেফাজতের ‘তেঁতুল হুজুর’ নামে খ্যাত আহমদ শফী নারীদের অবদান স্বীকার না করে অপমানজনক কথা বলেছেন; কটুক্তি করেছেন।

তিনি বলেন, সেদিন এই তেঁতুল হুজুরের বিরুদ্ধে দেশের আপামর নারী সমাজ প্রতিবাদে জ্বলে উঠলেও খালেদা জিয়া কিংবা বিএনপি একটি কথাও বলেনি।

শনিবার জাতীয় প্রেসক্লাবের হলরুমে সাংবাদিকদের সংগঠন রুরাল জার্নালিস্ট ফাউন্ডেশন (আরজেএফ) আয়োজিত এক আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে সাহারা খাতুন এ সব কথা বলেন।

‘মুক্তিযুদ্ধে মায়েদের ভূমিকা’ শীর্ষক আলোচনা সভায় সাহারা খাতুন বলেন, ইদানীং তেঁতুল হুজুর সুর নরম করে কথা বলছেন। যতই সুর নরম করেন না কেন নারী সমাজের কাছে ক্ষমা চাইতে হবে। না হয়, নারী সমাজ আপনার বিরুদ্ধে উপযুক্ত ব্যবস্থা নেবে।

বিএনপি এবং খালেদা জিয়ার সমালোচনা করে সাহারা খাতুন আরো বলেন, মুক্তিযুদ্ধে আপনার অবদানের কথা সবাই জানে। আহমদ শফীকে যেখানে নারীরা ঘৃণা করেছে, আপনি খালেদা জিয়া কেন চুপ করে ছিলেন? এদেশের নারী সমাজ তা জানতে চায়।

তিনি বলেন, আপনি সেই নারী যে বাংলাদেশের মুক্তিযুদ্ধের ইতিহাসকে বিকৃত করেছেন। রাজাকারকে মন্ত্রী বানিয়েছেন।

মুক্তিযুদ্ধে নারীদের ভূমিকা উল্লেখ করে মহাজোট সরকারের সাবেক এই মন্ত্রী বলেন, পুরুষের পাশাপাশি নারীরাও আমাদের জাতীয় সব ধরনের অগ্রগতিতে সমান অবদান রেখে চলেছেন। তাদের আর কোণঠাসা করে রাখার সুযোগ নেই।

কর্মক্ষেত্রে নারীদের জন্য সুষ্ঠু পরিবেশের আহ্বান জানিয়ে আওয়ামী লীগের এই নেতা বলেন, প্রতিটি পেশায় নারীর কাজের সুষ্ঠু পরিবেশ চাই।

এ সময় তিনি রানা প্লাজা ধসে ক্ষতিগ্রস্ত নারী শ্রমিকদের যথাযথ ক্ষতিপূরণ দেওয়ার জন্য কর্তৃপক্ষের কাছে আহ্বান জানান।

সংগঠনের সভাপতি এসএম জহিরুল ইসলামের সভাপতিত্বে আলোচনা অনুষ্ঠানে অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন ঢাকা মহানগর আওয়াম লীগের সিনিয়র সহসভাপতি ফয়েজ উদ্দিন মিয়া, সাবেক সেনা প্রধান হারুন-অর রশিদ বীরপ্রতীক, ঢাকা মহানগর আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক শাহ আলম মুরাদ প্রমুখ।

অনুষ্ঠানে রতœগর্ভা ১০ জন মায়ের হাতে ক্রেস্ট তুলে দেন অতিথিরা।

শেয়ার