মোরেলগঞ্জে সীমান্ত পুলের বেহাল দশা॥ হাজারো মানুষ দুর্ভোগে

Morrelgonj
মোরেলগঞ্জ প্রতিনিধি॥ বাগেরহাটের মোরেলগঞ্জ উপজেলার নিশানবাড়িয়া ও মোরেলগঞ্জ সদর ইউনিয়নের সীমান্তবর্তী খালের একটি জনগুরুত্বপূর্ণ পুল এখন সাকোতে পরিণত হয়েছে। দীর্ঘ ১০বছরে সংস্কারের ছোঁয়া না লাগায় পুলটি অবস্থা বেহাল হয়ে পড়েছে। ফলে নিশানবাড়িয়া গ্রামসহ পার্শ্ববর্তী খাউলিয়া, পশ্চিম খাউলিয়া ও বিশারীঘাট গ্রামের কয়েক হাজার মানুষ ও বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের শিক্ষার্থীরা পড়েছে দুর্ভোগে।
তদারকীর অভাবে পুলটির কাঠ পচে গেছে। লোহার অনেক খাম্বাও বেহাত হয়েছে। স্থানীয় জনগণ অবশিষ্ট লোহার খাম্বার উপর দিয়ে গাছ ফেলে সাকো বানিয়ে কোনমতে চলাচল করছে। নিত্য দুর্ঘটনার আশঙ্কা মাথায় নিয়েই পুল খ্যাত ওই সাকোটি পার হতে হয় সকলকে। নিশানবাড়িয়া ও মোরেলগঞ্জ সদর ইউনিয়নের সীমান্তবর্তী খালের ওই পুলটি কোন ইউনিয়নের আওতায় সংস্কার বা পুনঃ নির্মাণ করা হবে এ বিষয়টি অমিমাংসিত থাকায় মেরামতের উদ্যোগ কোন চেয়ারম্যান নিতে পারছেন না।
এ বিষয়ে সদর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান এইচএম মাহমুদ আলী বলেছেন পুলটি খাউলিয়া ইউনিয়ন চেয়ারম্যান সংস্কার করাবেন। খাউলিয়া ইউনিয়ন চেয়ারম্যান মাষ্টার আবুল খায়ের বলেছেন জনদুর্ভোগ বিবেচনায় আগামী জুন মাসের মধ্যে এলজিএসপি প্রকল্পের আওতায় পুলটি মেরামত করা হবে। ভুক্তভোগীরা এ সমস্যার সমাধানে উভয় ইউনিয়ন চেয়ারম্যানসহ উপজেলা চেয়ারম্যানের সদয় দৃষ্টি কামনা করেছে।

শেয়ার