অভয়নগরে স্ত্রীর পরকীয়ার বলি হলেন স্বামী

prokia
অভয়নগর (যশোর) প্রতিনিধি॥ অভয়নগরে স্ত্রীর পরকীয়ার বলি হলেন সেলিম শেখ (৪০) নামে এক ব্যক্তি। তাকে শ্বাসরোধ করে হত্যা করা হয়েছে। স্ত্রী রোকসানা পুলিশের কাছে গুরুত্বপূর্ণ তথ্য প্রকাশ করেছে। তবে প্রেমিক মতি এখনো আটক হয়নি। শুক্রবার রাতে উপজেলার চলিশিয়া গ্রামে এই হত্যাকান্ডের ঘটনা ঘটেছে।
পুলিশ জানায়, শনিবার সকালে চলিশিয়া গ্রামের রাস্তার পাশ থেকে সেলিম শেখের লাশ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য যশোর মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে। তাকে শ্বাসরোধ করে হত্যা করা হয়েছে। এ ঘটনায় নিহতের স্ত্রী রোকসানাকে আটক করে পুলিশ হত্যারহস্য জানতে পেরেছে। এখন খুনি মতিকে গ্রেফতারে পুলিশ অভিযান চালাচ্ছে। ইউপি মেম্বর হাবিবুর রহমান হাবু জানান, শেখ সেলিম ছিলেন সহজ সরল প্রকৃতির মানুষ। তার দুটি কন্যা সন্তান রয়েছে। বড় মেয়ের বিয়েও হয়েছে। তিনি জানান, নেহালপুর গ্রামের ঝাউতলা এলাকার ইব্রাহিম হোসেনের ছেলে মতিয়ার রহমান মতির সাথে দির্ঘদিনের পরকীয়া রয়েছে স্ত্রী রোকসানার। এনিয়ে বেশ কয়েকবার সালিশি বৈঠক হয়েছে। সম্প্রতি সেলিম শেখ প্রায় ৭ লাখ টাকার জমি বিক্রি করেন। এই টাকা কৌশলে হাতিয়ে নেয় স্ত্রী রোকসানা বেগম। এ নিয়ে স্বামী স্ত্রীর মধ্যে বিরোধ দেখা দেয়। শুক্রবার বিকালে রোকসানা বেগম স্বামীকে টাকা আনতে পাঠায় মতিয়ারের নিকট। তারপর তিনি খুন হন। পুলিশ জানায়, শনিবার ভোরে নিহত স্বামীর পাশে বসে রোকসানার কাদতে দেখে পুলিশের সন্দেহ হয়। পুলিশ জানায় এ কান্না সে কান্না নয় মনে করেই তাকে সন্দেহ করা হয়। প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে তার কথার মধ্যে বেশ রহস্য খুজে পাওয়া যায়। এক পর্যায়ে তাকে আটক করে জিজ্ঞাসাবাদ করা হলে সে গুরুত্বপুর্ণ তথ্য দিয়েছে। ওসি মোল্যা খবির উদ্দিন জানান, পরকীয়ার কারনেই সেলিমকে খুন হতে হয়েছে, এমনটি মনে হচ্ছে। তার স্ত্রীর স্বীকারোক্তি খতিয়ে দেখার পর অচিরেই প্রকৃত রহস্য জানা যাবে।

SHARE