নিউইয়র্ক টাইমসের শত বছরের ভুল!

newyork times
বাংলানিউজ ॥
একদিন-দু’দিন নয়, শত বছরেরও বেশি সময় ধরে ভুল করে এসেছিল নিউইয়র্ক টাইমস। যুক্তরাষ্ট্রের প্রভাবশালী পত্রিকাটির ওই ভুল সংবাদ সংক্রান্ত ছিল না, ছিল পত্রিকার সংখ্যা সংক্রান্ত। সংখ্যায় ভুল হওয়ায় পত্রিকার সংখ্যা বেড়ে গিয়েছিল ৫০০!

টানা ১০০ বছরের বেশি সময় ধরে পত্রিকার প্রথম পাতায় প্রতিদিন চলে এসেছিল ওই ভুল। অবশেষে ২০০০ সালের ১ জানুয়ারি শুধরানো হয় ভুলটি।

ঋঁঃরষরঃু ঈষড়ংবঃ নামে একটি ব্লগের বরাত দিয়ে দ্য আটলান্টিক নামের একটি পত্রিকা এ তথ্য প্রকাশ করেছে। পত্রিকাটি জানিয়েছে, ১৮৯৮ সালের ৬ থেকে ৭ ফেব্রুয়ারির মধ্যে ভুলটি হয়েছিল। রাতে দায়িত্বপ্রাপ্ত কেউ পত্রিকার সংখ্যা বসাচ্ছিলেন। তিনি দেখলেন বর্তমান সংখ্যা হচ্ছে ১৪, ৪৯৯। এর সঙ্গে তিনি এক যোগ করে করলেন ১৫, ০০০। আর এভাবে প্রতিদিন ১৫ হাজারের সঙ্গে এক যোগ করে চলে আসছিল ২০০০ সাল পর্যন্ত।

১৯৯৯ সালে অ্যারন ডানোভান নামের এক নিউজ অ্যাসিসট্যান্টের চোখে ধরা পড়ে বিষয়টি। এরপর ২০০০ সালের ১ জানুয়ারি সংখ্যায় সংশোধন করে পত্রিকায় প্রকাশ করা হয় ভুলের অতীত ইতিহাস মূলক নোট!
ওই নোটে বলা হয়, ‘মনে হচ্ছে, ১৮৯৮ সালের ৬ ফেব্রুয়ারি কেউ পরের দিনের প্রথম পাতা তৈরি করছিলেন।

তিনি পত্রিকার আপার ফোল্ডের বামপাশের কোণে সংখ্যার (১৪, ৪৯৯) জায়গায় ১ যোগ করছিলেন। তার যোগফল এসেছিল ১৫০০০। কারও চোখে এটা ধরা পড়েনি, তাই ভুল ৫০০ সংখ্যা গতকাল পর্যন্ত (৫১, ৭৫৩) ছিল। আজকে দ্য টাইমস এটি সংশোধন করছে। আজকের সংখ্যা হচ্ছে: ৫১, ২৫৪।’

শেয়ার