পাইকগাছায় কলেজ ছাত্র গুলিবিদ্ধ॥ আটক ২

khulna
পাইকগাছা (খুলনা) প্রতিনিধি॥ পাইকগাছায় এক কলেজ ছাত্রের বাড়িতে সশস্ত্র হামলা চালিয়েছে দুর্বৃত্তরা। এ সময় গুলিবিদ্ধ কলেজ ছাত্র অভিজিৎকে খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। এ ঘটনায় প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদের জন্য পুলিশ ২ জনকে আটক করেছে। ছাত্রাবাসের ভাড়ার টাকা নিয়ে এ ঘটনা ঘটেছে বলে পুলিশ ও আহতের পরিবার জানিয়েছে।
থানা পুলিশ ও এলাকাবাসী সূত্রে জানা গেছে, পৌরসভার ৫নং ওয়ার্ডের সরল গ্রামের সঞ্জীব বিশ্বাসের ছেলে ও খুলনা সিটি কলেজের ২য় বর্ষের ছাত্র অভিজিৎ বিশ্বাস (১৭) ও একই এলাকার ৪নং ওয়ার্ডের মানিক মন্ডলের ছেলে অচিন্তসহ সহপাঠী ৩ বন্ধু লেখাপড়ার সূত্রে খুলনার একটি ছাত্রাবাস ভাড়া করে বসবাস করত। শনিবার বাড়ি আসার সময় অচিন্ত্যর ছাত্রাবাসের ২ মাসের ভাড়ার টাকা বাকী থাকায় অভিজিৎ অচিন্ত্যর ব্যবহৃত মোবাইলটি জামানত হিসাবে নিয়ে ভাড়ার টাকা পরিশোধ করে। পরে বাড়ি আসার পর মোবাইল নেওয়ার অপরাধে রোববার অচিন্ত্য অভিজিৎকে কুপিয়ে জখম করার হুমকি দেয়। এ ঘটনায় সোমবার প্রথম প্রহর (রাত ১টা)’র দিকে অচিন্ত্যর নেতৃত্বে ৩ দুবৃত্ত অভিজিতের বাড়ির ঘরের দরজা ভেঙ্গে ভিতরে প্রবেশ করে ঘুমিয়ে থাকা পরিবারের উপর আতর্কিত হামলা চালায়। এসময় অভিজিতের মা শেখরা বিশ্বাসের সাথে ধ্বস্তাধ্বস্তির এক পর্যায়ে দুর্বত্তরা অভিজিতকে লক্ষ্য করে গুলি করে। গুলিট্ িতার পায়ে বিদ্ধ হলে সাথে সাথে সে মাটিতে লুটিয়ে পড়ে। এসময় তাদের আত্মচিৎকারে দুর্বৃত্তরা পালিয়ে যায়। পরে এলাকাবাসী আহত অভিজিতকে উদ্ধার করে প্রথমে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্রেক্স ও পরে খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করে। এ খবর জানতে পেরে ওই রাতেই পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন ও অচিন্ত্যর বাড়িতে অভিযান চালায়। এ ঘটনায় সোমবার সকালে অচিন্ত্যর বাবা মানিক মন্ডল ও পার্থ মন্ডল নামের দু’জনকে আটক করেছে পুলিশ। প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদের জন্য তাদেরকে আটক করা হয়েছে বলে ওসি এম মসিউর রহমান জানান।

শেয়ার