দক্ষিণ সুদানের গুরুত্বপূর্ণ শহর বিদ্রোহীদের দখলে

sudan
বাংলানিউজ॥ দক্ষিণ সুদানের অভ্যুত্থানের চেষ্টা চালিয়ে ব্যর্থ হওয়া সেনাসদস্য ও তাদের সহযোগীদের দখলে দেশের গুরুত্বপূর্ণ শহর চলে গেছে বলে জানিয়েছে সামরিক বাহিনী।
সামরিক বাহিনীর মুখপাত্র ফিলিপ আগুয়ের জানিয়েছেন, সৈন্যরা রিয়েক ম্যাচারের বাহিনীর হাতে তাদের সৈন্যরা নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে ফেলেছে।
সাবেক ভাইস প্রেসিডেন্ট ম্যাচার বর্তমান প্রেসিডেন্ট সালভা কিরকে উৎখাতের চেষ্টাকারী সেনাবাহিনীর একাংশকে উসকে দিয়েছেন বলে অভিযোগ করেছেন কির।
তবে এ অভিযোগ অস্বীকার করেছেন ম্যাচার। তিনি পলাতক রয়েছেন। তাকে গ্রেফতারের চেষ্টা চালাচ্ছে সরকার। দক্ষিণ সুদান কর্তৃপক্ষ এরইমধ্যে সাবেক একমন্ত্রীসহ ১০ সরকারি কর্মকর্তাকে গ্রেফতার করেছে।
রোববার ব্যর্থ অভ্যুত্থানের পর দেশটিতে সংঘর্ষ চলছে। সংঘর্ষে ৫ শতাধিক লোক নিহত হয়েছে বলে অসমর্থিত সূত্রের বরাতে জানিয়েছে জাতিসংঘ।
রোববার প্রেসিডেন্ট প্রাসাদে গোলাগুলি শুরু হওয়ার পর রাজধানী জুবার বিভিন্ন এলাকায় সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। জুবা ছাড়িয়ে দেশের অন্যান্য এলাকায় ছড়িয়ে পড়েছে এ সহিংসতা।
২০১১ সালে সুদান থেকে আলাদা হয়ে যাওয়ার পর বিভিন্ন বিদ্রোহী গোষ্ঠী হাতে অস্ত্র তুলে নেয়। তাদের একটি একটি বোর শহর দখলে নিয়েছে বলে জানান তিনি।
এ সহিংসতায় দেশটির প্রধান দুই জাতিগোষ্ঠী দিনকা ও নুয়েরে মধ্যে সম্ভাব্য গৃহযুদ্ধ নিয়ে উদ্বেগ প্রকাশ করেছে জাতিসংঘ। বর্তমান প্রেসিডেন্ট কির দিনকা গোষ্ঠীভুক্ত ও সাবেক ভাইস প্রেসিডেন্ট ম্যাচার নুয়ের গোষ্ঠীভুক্ত।
সহিংসতা থেকে বাঁচতে শত শত লোক জুবায় জাতিসংঘের মিশনে আশ্রয় নিয়েছে। জরুরি নয় এমন কূটনৈতিক কর্মকর্তাদের দক্ষিণ সুদান ছাড়ার নির্দেশ দিয়েছে যুক্তরাষ্ট্র। যুক্তরাজ্যও নিজ দেশের নাগরিকদের দক্ষিণ সুদান ছাড়ার পরামর্শ দিয়েছে।

শেয়ার