কলারোয়ায় সেনা সদস্যকে পিটিয়ে হাত ভেঙ্গেছে শিবির॥ কালিগঞ্জে আ.লীগের দ্ইু কর্মীকে কুপিয়ে জখম

সাতক্ষীরা প্রতিনিধি॥ সাতক্ষীরার কলারোয়ায় জলিলুর রহমান (৩৮) নামে এক সেনা সদদ্যকে পিটিয়ে হাত ভেঙ্গে দিয়েছে জামায়াত-শিবির। তার মটরসাইকেলটিও ভেঙ্গে গুড়িয়ে দিয়েছে তারা। একই দিন বিকেলে কালিগঞ্জ উপজেলার নলতায় গিয়াসউদ্দীন ও খোকন নামে আওয়ামী লীগের দুই কর্মীকে কুপিয়ে রক্তাক্ত জখম করে শিবিরের আরেকটি দল। তাদের উদ্ধার করে সাতক্ষীরা হাসপাতালে চিকিৎসা দেয়া হচ্ছে।
পুলিশ জানায়, বৃহস্পতিবার সেনা সদস্য জলিলুর রহামন ছুটিতে তার গ্রামের বাড়ি কলারোয়া উপজেলার নাকিলায় আসছিলেন। তিনি ওই গ্রামের চাঁদ আলীর ছেলে ও সাতক্ষীরা-১ আসনে আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী প্রার্থী সরদার মুজিবের ছোট ভাই। তিনি যশোর সেনা নিবাসে ল্যান্স কর্পোরাল পদে কর্মরত আছেন। তিনি বৃহস্পতিবার বিকেল সাড়ে ৪টার দিকে উপজেলার লাবসা ইউনিয়নের মুথরাপুর নামক স্থানে আসলে জামায়াত-শিবির কর্মীরা তার উপর হামলা করে। এসময় তার মটরসাইকেলটিও ভাংচুর করা হয়। একইদিন আ.লীগ কর্মী গিয়াসউদ্দীন ও খোকনকে নলতায় রাস্তার ওপর ফেলে কুপিয়ে জখম করে জামায়াত-শিবির। সাতক্ষীরা সদর থানার ওসি ইনামুল হক ও কালিগঞ্জ ওসি আলী আজম পৃথক দুটি ঘটনার সত্যতা স্বীকা করেছেন।

শেয়ার