পিতা মাতা হত্যার বিচার চেয়ে জীবনাশঙ্কায় গৃহবধূ শিল্পী

অভয়নগর (যশোর) প্রতিনিধি॥ পিতা হত্যার বিচার চেয়ে সর্বস্ব হারিয়ে পালিয়ে বেড়াচ্ছেন মারজান শিল্পী নামে এক গৃহবধূ। সন্ত্রসীদের দেয়া আগুনে তার বসতবাড়ী পুড়ে ভষ্মিভূত হয়েছে।
জানাগেছে জমিজমা সংক্রান্ত বিরোধের জের ধরে ২০০৫ সালের ১১ জুলাই প্রতিপরে হাতে নিহত হন মারজান শিল্পীর পিতা তুরাফ চৌধুরী (৫৫)। ওইদিন সকালে পুলিশ বারো বাজার মহাসড়কের পার্শ্ব থেকে তার লাশ উদ্ধার করে। এঘটনায় মামলা করতে গেলে মারজান শিল্পী ও তার মাতা আকলিমা বেগম (৪০) কে বাধা দেয় খুনিরা। পরে আকলিমা খাতুন যশোর আদালতে মামলা করতে যান কিন্তু রাস্তায় পরিকল্পিত ভাবে গাড়ী চাপা দিয়ে হত্যা করা হয়। এতে দিশেহারা হয়ে পড়েন মারজান শিল্পী। তিনি পিতা মাতার হত্যাকারীদের বিচার চাওয়ায় সন্ত্রাসিরা প্তি হয়ে ২০১৩ সালের ১৩ মারজান শিল্পীকে হত্যার উদ্দেশ্যে মশরহাটীর বসতবাড়ীতে আগুন জ্বালিয়ে দেয়। তবে প্রাণে বেঁচে যান তিনি। শেষ পর্যন্ত চরম নিরপত্তাহীনতায় মারজান শিল্পী শ্বশুরবাড়ী বরিশালে পালিয়ে যান। সেখানেও মারজান শিল্পীকে হত্যার হুমকি দেয়া হচ্ছে বলে অভিযোগ করেছেন এই গৃহবধূ।

শেয়ার