বর্ণাঢ্য আয়োজনে যশোর মুক্ত দিবস উদ্যাপন

Jessore free day(7-12-07) - footage-3  001
নিজস্ব প্রতিবেদক॥ বর্ণাঢ্য আয়োজনে যশোর মুক্ত দিবস উদযাপিত হয়েছে। শুক্রবার সকাল ১০ টায় টাউন হল রওশন আলী মঞ্চে শত কণ্ঠে জাতীয় সংগীত পরিবেশনের মধ্যদিয়ে বর্ণাঢ্য অনুষ্ঠানের সূচনা হয়। বর্ণাঢ্য শোভাযাত্রা উদ্বোধন করেন সাবেক গণপরিষদ সদস্য মঈনুদ্দীন মিয়াজী। এতে যশোরের সর্বস্তরের মানুষ অংশগ্রহণ করেন।
উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে মঈনুউদ্দীন মিয়াজী বলেন, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ডাকে সাড়া দিয়ে এদেশের মানুষ অস্ত্র হাতে দেশ স্বাধীন করে। তবে দেশ স্বাধীন হলেও আমরা আজো মুক্ত হতে পারিনি। ৭১’র পরাজিত শত্রুদের ষড়যন্ত্র অব্যাহত রয়েছে। শত্রুদের মোকাবেল করতে আবারও প্রতিরোধ গড়ে তুলতে হবে। উদ্বোধনী মঞ্চে উপস্থিত ছিলেন যশোর-৫ (মণিরামপুর) আসনের সংসদ সদস্য অ্যাডভোকেট খান টিপু সুলতান, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক জাহিদ হোসেন পনির, জাসদের কেন্দ্রীয় সহ-সভাপতি মুক্তিযোদ্ধা রবিউল আলম, সাবেক জেলা মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার এএইচএম মুযহারুল ইসলাম মন্টু ও রাজেক আহমেদ, দৈনিক কল্যাণ সম্পাদক একরাম-উদ-দৌলা, মুক্তিযোদ্ধা সংহতি পরিষদের সভাপতি আমিরুল ইসলাম রন্টু, সম্মিলিত সাংস্কৃতিক জোটের সভাপতি হারুন অর রশিদ প্রমুখ।
সাবেক গণপরিষদ সদস্য মঈনুদ্দীন মিয়াজী আরও বলেন, বঙ্গবন্ধু ৬ দফা দাবির পর এই টাউন হল ময়দানের সমাবেশে বক্তব্য রেখেছিলেন। তার বক্তব্যের পর যশোরের মানুষ উজ্জীবিত হয়েছিল। দেশের প্রথম শত্রুমুক্ত যশোর জেলা। আর স্বাধীন দেশের মাটিতে প্রথম জনসভায় অস্থায়ী সরকারের প্রধানমন্ত্রী ভাষণ দিয়েছিলেন। টাউন হল ময়দান থেকে বর্ণাঢ্য শোভাযাত্রা বের হয়ে জেলা প্রশাসকের কার্যালয়, বঙ্গবন্ধু ম্যুরালের পাশ দিয়ে শহর প্রদিক্ষণ করে খুলনা স্ট্যান্ডের বিজয় স্তম্ভ গিয়ে শেষ হয়। এরপর বিজয় স্তম্ভে শ্রদ্ধাঞ্জলি প্রদান করা হয়। জেলা প্রশাসন, আওয়ামী লীগ, ছাত্রলীগসহ বিভিন্ন সামাজিক সাংস্কৃতিক সংগঠনের পক্ষ থেকে শহীদ স্মৃতি স্তম্ভ পুষ্পার্ঘ অর্পণ করা হয়।

শেয়ার