২০২৭ সালের মধ্যে উন্নত রাষ্ট্র হবে বাংলাদেশ

বাংলানিউজ ॥
২০২৭ সালের মধ্যে বাংলাদেশ স্বল্পোন্নত দেশ থেকে মধ্যম আয়ের উন্নত দেশে পরিণত হবে বলে জানিয়েছে সেন্টার ফর পলিসি ডায়ালগ (সিপিডি)।
বুধবার সকালে জাতিসংঘের উন্নয়ন ও বাণিজ্য বিষয়ক সংস্থা (ইউএনসিটিএডি) প্রকাশিত বিশ্বের ৪৯টি স্বল্পোন্নত দেশের ২০১৩ সালের প্রতিবেদন প্রকাশ অনুষ্ঠানে এ কথা জানায় সংস্থাটি।
সিপিডির কার্যালয়ে আয়োজিত অনুষ্ঠানে মূল প্রতিবেদন উপস্থাপনা করেন সিপিডির গবেষণা পরিচালক ড. ফাহমিদা খাতুন।
প্রতিবেদনে উল্লেখ করা হয়, স্বল্পোন্নত দেশ থেকে মধ্যম আয়ের দেশে পরিণত হতে যেসব শর্ত পূরণ করা প্রয়োজন তার প্রায় সবগুলোই ইতোমধ্যে বাংলাদেশ পূরণ করতে সক্ষম হয়েছে। তবে জনসংখ্যা বৃদ্ধির উচ্চহার এখনো কমানো সম্ভব না হলেও ২০২৭ সালের মধ্যে তা যখন ১ শতাংশে নেমে আসবে, তখন দেশ মধ্যম আয়ের দেশে পরিণত হবে।
দেশকে মধ্যম ও উন্নত আয়ের দেশে পরিণত করতে স্থিতিশীল রাজনীতির বিকল্প নেই উল্লেখ করে সিপিডি জানান, মধ্যম ও উন্নত আয়ের দেশে পরিণত হতে হলে দেশীয় সহ বৈদেশিক বিনিয়োগ প্রয়োজন। এখন পর্যন্ত এই ধারা অব্যাহত রয়েছে। তবে দেশের চলমান রাজনৈতিক অস্থিরতা অব্যাহত থাকলে দেশে এই ধারা ভেঙে পড়বে। এতে দেশ বিনিয়োগ হারাবে, কর্মসংস্থান কমে যাবে। ফলে দারিদ্র্য হ্রাসের লক্ষ্যমাত্রা অর্জিত হবে না। তাই দেশের অর্থনৈতিক উন্নয়নে রাজনৈতিক দলগুলোকে এখনই সমঝোতায় আসা উচিৎ।
প্রতিবেদনে বাংলাদেশের অবস্থান আগের চেয়ে বেশ ভাল অবস্থানে আছে উল্লেখ করে জানানো হয়, মানুষের মাথাপিছু আয় বৃদ্ধি পেলেও কৃষিতে খুব একটা ভাল করতে পারেনি বাংলাদেশ। এই পেশার সাথে প্রায় ৫০ শতাংশ মানুষ জড়িত থাকলেও দেশের জিডিপিতে কৃষির অবদান মাত্র ৩০ শতাংশ। তাই এই খাতে সরকারের অধিক মনোযোগী হওয়া উচিৎ।

শেয়ার