সাতক্ষীরার বিএনপি নেতা আমান হত্যাকাণ্ড জেলা যুবদলের সভাপতিসহ আরও দু’জন জেলহাজতে

সাতক্ষীরা প্রতিনিধি॥ সাতক্ষীরা জেলা মৎস্যজীবী দলের সাধারণ সম্পাদক ও সাবেক ভিপি আমানউল্যাহ আমান হত্যা মামলায় জেলা যুবদলের সভাপতি আবুল হাসান হাদী ও বিএনপি কর্মী সাজু হোসেনকে জেল হাজতে প্রেরণ করা হয়েছে।
উচ্চ আদালতের ডাইরেকশন শেষে গতকাল রোববার বেলা ১২ টায় সাতক্ষীরার মুখ্য বিচারিক হাকিম শহীদুল ইসলাম এর আদালতে হাজির হয়ে জামিনের প্রার্থনা করলে আদালত তাদের জেল হাজতে প্রেরণের নির্দেশ দেন। উক্ত আসামিরা উচ্চ আদালত থেকে জামিনে থাকার পর রোববার নি¤œ আদালতে হাজির হয়ে জামিন প্রার্থনা করেন। সাতক্ষীরা জেলা কোর্ট পুলিশ পরিদর্শক রতন শেখ ঘটনা নিশ্চিত করেছেন।
উল্লেখ্য, গত ৬ সেপ্টেম্বর জেলা বিএনপি‘র কর্মী সমাবেশে জেলা বিএনপি’র সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক গ্র“পের মধ্যে সংঘর্ষে নিহত হন জেলা মৎস্যজীবী দলের সাধারণ সম্পাদক আমানউল্যাহ আমান। এ ঘটনায় নিহতের মা বাদী হয়ে জেলা বিএনপি’র সভাপতি হাবিবুল ইসলাম হাবিবসহ ৭৭ জনের নাম উল্লেখ করে অজ্ঞাত আরও ৪০/৪৫ জনকে আসামি করে সাতক্ষীরা সদর থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন।
আলোচিত আমান উল্যাহ আমান হত্যা মামলায় ইতোপূর্বে কারাগারে ছিল ৩২ জন, গতকাল জেলা যুব দলের সভাপতিসহ আরও দুই জন কারাগারে যায়। এছাড়াও এমামলার অপর আসামি এম সোহেল আহম্মেদ মানিক অন্য মামলায় বর্তমানে কারাগারে রয়েছে। গতকাল রোববার মানিকের আত্মসমর্পনের দিন ছিল। সবমিলিয়ে বর্তমানে এমামলার ৩৫ জন আসামি এখন জেল হাজতে রয়েছে।
এদিকে, আমান উল্লাহ আমান হত্যাকারীদের গ্রেফতার, তাদের দল থেকে বহিস্কার ও দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবিতে বিক্ষোভ মিছিল ও সমাবেশ করেছে আমান হত্যার বিচার বাস্তবায়ন সংগ্রাম কমিটি।
রোববার সকাল ১০ টায় সাতক্ষীরা নিউ মার্কেট চত্বর থেকে একটি বিক্ষোভ মিছিল বের হয়ে জেলা শহরের প্রধান প্রধান সড়ক প্রদক্ষিণ শেষে নিউ মার্কেট চত্বরে তারা সমাবেশ করে। আমান হত্যার বিচার বাস্তবায়ন সংগ্রাম কমিটির আহবায়ক, জেলা কৃষক দলের সাধারণ সম্পাদক আবু জাহিদ ডাবলুর সভাপতিত্বে সমাবেশে বক্তব্য রাখেন, জেলা শ্রমিক দলের সভাপতি আব্দুস সামাদ, জেলা ছাত্রদলের সভাপতি হাফিজুর রহমান মুকুল, জেলা জাসাসের সভাপতি এখলেছার আলী বাচ্চু প্রমুখ। তারা হত্যাকারীদেরকে অবিলম্বে দল থেকে বহিস্কার ও গ্রেফতারের দাবি জানান।

শেয়ার