প্রাথমিক শিক্ষা সমাপনীতে পরীক্ষার্থী ২৯ লাখ

বাংলানিউজ ॥
দেশের বৃহৎ পাবলিক পরীক্ষা প্রাথমিক ও ইবতেদায়ী শিক্ষা সমাপনী পরীক্ষা-২০১৩ শুরু হচ্ছে আগামী ২০ নভেম্বর, চলবে ২৮ নভেম্বর পর‌্যন্ত। পঞ্চম শ্রেণি শেষ করা ২৯ লাখ শিক্ষার্থী এ পরীক্ষায় অংশ নেবে।
সোমবার সচিবালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রী আফছারুল আমীন পরীক্ষার সার্বিক প্রস্তুতি তুলে ধরেন।
মন্ত্রী জানান, এবার প্রাথমিক ও ইবতেদায়ী শিক্ষা সমাপনীতে মোট ২৯ লাখ ৫০ হাজার ১৯৩ জন শিক্ষার্থী অংশ নেবে। দেশব্যাপী ৫৭৪টি কেন্দ্রে একযোগে এই পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে। সকাল ১১টা থেকে আড়াই ঘণ্টার পরীক্ষা হবে।
অন্য বছরগুলোতে দুই ঘণ্টা করে এই পরীক্ষা হলেও এবার ৩০ মিনিট বাড়ানো হয়েছে। ২৫ শতাংশ যোগ্যতাভিত্তিক (সৃজনশীল) প্রশ্ন থাকায় এ সময় বাড়ানো হয় বলে জানান আফছারুল আমীন।
প্রাথমিক সমাপনীতে ২৬ লাখ ৩৫ হাজার ৪০৬ জন আর ইবতেদায়ীতে তিন লাখ ১৪ হাজার ৭৮৭ জন পরীক্ষার্থী রয়েছে। এবার ইংরেজি মাধ্যমের পরীক্ষার্থী ৬ হাজার ৪৫৭ জন।
এ বছর দেশের বাইরে রিয়াদ, জেদ্দা, আবুধাবী, বাহরাইন, দুবাই, কাতার, ত্রিপলী এবং ওমান কেন্দ্রে ৭৭৪ জন শিক্ষার্থী পরীক্ষায় অংশ নেবে।
১১৫টি পরীক্ষা কেন্দ্রকে দূর্গম চিহ্নিত করে ওইসব কেন্দ্রে প্রশাসনের তত্ত্ববধায়নে পরীক্ষার আগের দিন প্রশ্নপত্র সরবরাহ করা হবে বলেও জানান মন্ত্রী।
আফছারুল বলেন, এবার প্রতিবন্ধী শিক্ষার্থীরা পরীক্ষায় অতিরিক্ত ২০ মিনিট সময় পাবে। এক উপজেলার উত্তরপত্র অন্য উপজেলায় পাঠিয়ে মূল্যায়ন করা হবে।
এর আগে প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয় জানিয়েছিল, পরীক্ষা শেষে আগামী ২৬ ডিসেম্বর সমাপনী পরীক্ষার ফল প্রকাশের পরিকল্পনা নেয়া হয়েছে। সেক্ষেত্রে ৩১ ডিসেম্বর শিক্ষার্থীরা নম্বরপত্র পাবে এবং উত্তীর্ণ শিক্ষার্থীদের আগামী ২০ জানুয়ারি সনদপত্র দেয়া হবে।

শেয়ার