হরতালের দ্বিতীয় দিন ॥ হরতাল বিরোধী মিছিলে প্রকম্পিত যশোর

misil copy
নিজস্ব প্রতিবেদক॥ ১৮ দলের ডাকা ৮৪ ঘন্টার হরতালের দ্বিতীয় দিন সোমবার যশোরের রাজপথে দেখা যায়নি নেতাকর্মীদের। হরতাল বিরোধী মিছিলে প্রকম্পিত শহরে পিকেটিং করার সাহস পায়নি জামায়াত বিএনপির ক্যাডাররা। সকালের দিকে শহরে লোক সমাগম কম থাকলেও বেলা বৃদ্ধির সাথে সাথে মানুষের ভিড় বাড়তে থাকে। ১৮ দলের হরতাল প্রত্যাখান করেছে সাধারণ মানুষ।
সকালে শহরের খাজুরা স্ট্যান্ড এলাকায় হরতাল সমর্থক ও হরতাল বিরোধীদের মধ্যে ধাওয়া পাল্টা ধাওয়ার ঘটনা ঘটেছে। তবে কোন সহিংসতার ঘটনা ঘটেনি। হরতালকে ঘিরে সকাল থেকেই রাজপথে ছিল কড়া পুলিশ প্রহরা। হরতাল সমর্থকরা বিচ্ছিন্নভাবে মিছিল করেছে। তবে শহরে হরতালবিরোধী একাধিক মিছিল হয়েছে। আওয়ামী লীগ ও সহযোগী সংগঠনগুলো খণ্ড খণ্ড মিছিল করেছে। শহরে কম সংখ্যক রিকসা, ভ্যান চললেও দোকানপাট ছিল বন্ধ। অফিস আদালত খোলা থাকলেও লোক সমাগম ছিল কম।
যশোর কোতোয়ালি মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এমদাদুল হক জানান, যশোরে শান্তিপূর্ণ অবস্থা বজায় রয়েছে। শহরের বিভিন্নস্থানে পুলিশ মোতায়েনের পাশাপাশি টহলও রয়েছে।
অপরদিকে যশোরে হরতাল বিরোধী মিছিল বের করে জেলা আওয়ামী লীগ। বেলা সাড়ে ১২টার দিকে শহরের চিত্রামোড়স্থ দলীয় কার্যালয় চত্ত্বর থেকে মিছিলটি বের হয়। এতে উপস্থিত ছিলেন জেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক অ্যাডভোকেট আফজাল হোসেন, দপ্তর সম্পাদক মীর জহুরুল ইসলাম, শহর আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক ইয়াসিন সিদ্দিকী, যুব মহিলা লীগের সভাপতি মঞ্জুন্নাহার নাজনীন সোনালী, সাধারণ সম্পাদক রোকেয়া পারভীন ডলি, জেলা ছাত্রলীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক এসএম মাহমুদ হাসান বিপু, জেলা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক আনোয়ার হোসেন বিপুল প্রমুখ। মিছিলটি শহরের গুরুত্বপূর্ণ সড়ক প্রদণি শেষে দড়াটানায় শেষ হয়। মিছিল থেকে হরতাল বিরোধী বিভিন্ন স্লোগান দেওয়া হয়।

শেয়ার