বুদ্ধিমত্তায় পাচারকারী চক্রের হাত থেকে রক্ষা পেল খাগড়াছড়ির খাদিজা

khadija
কোটচাঁদপুর (ঝিনাইদহ) প্রতিনিধি॥ বুদ্ধির জোরে নারী পাচারকারী চক্রের হাত থেকে রা পেল খাগড়াছড়ি জেলার রামগড় এলাকার খাদিজা আক্তার এ্যানি (২০) নামের তরুনী। তাকে সোমবার সকালে কোটচাঁদপুর থানা পুলিশ উদ্ধার করেছে।
উদ্ধারকৃত তরুণী ও পুলিশ জানায়, ঢাকার গুলশান এলাকার জনৈক্য হারুনের বাসায় খাজিদা ৬/৭ মাস আগে কাজ নেয়।
তাঁর স্বামী ইব্রাহীম ওই এলাকায় দিন মুজুরের কাজ করে। বাড়ির মালিক হারুন খাদিজাকে বিদেশে চাকুরি দেয়ার প্রলোভন দেখায়। সহজ সরল খাদিজা তাঁর প্রলোভনে পড়ে। গত শুক্রবার বাড়ির মালিক হারুন নারী পাচারকারী চক্রের সদস্য বাবুর হাতে তাকে তুলে দেয়। বাবুর নেতৃত্বে বেশ কয়েক জন পাচারকারী খাদিজাকে ঢাকা থেকে কোটচাঁদপুর আনে। সোমবার সকালে খাদিজাকে নিয়ে সীমান্তে যাবার জন্য কোটচাঁদপুর ব্রিজঘাট এলাকায় আসে। এরমধ্যে খাদিজা পাচারকারী সদস্যদের আলাপে উদ্দেশ্য বুঝতে পারে। সে তাদের হাত থেকে রা পেতে সুযোগ খুঁজতে থাকে। তারা একটি ইঞ্জিন চালিত ভ্যান ভাড়া করতে গেলে খাদিজা বিষয়টি স্থানীয় লোকজনকে বলে কাঁদতে থাকে। এ সময় লোকজন ঘটনাটি থানা পুলিশকে জানায়। পুলিশ আসার আগেই খাদিজাকে ফেলে পাচারকারীরা সটকে পড়ে। পরে পুলিশ তাকে উদ্ধার করে। পুলিশ পরিদর্শক শাহাজান খান বলেন, উদ্ধার হওয়া মেয়েকে জিজ্ঞাসাবাদে বিস্তারিত জেনেছি। তার স্বামী ও পিতাকে বিষয়টি জানানো হয়েছে। তারা এসে মামলা দিলে তা নেয়া হবে।

শেয়ার