পরীক্ষার্থীদের আর জিম্মি করবেন না: শিক্ষামন্ত্রী

nnahid
সমাজের কথা ডেস্ক॥ হরতালের নামে পরীক্ষার্থীদের ‘জিম্মি’ না করতে আবারো বিরোধী দলের প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদ।
বৃহস্পতিবার আজিমপুর সরকারি বালিকা উচ্চ বিদ্যালয় ও কলেজে জুনিয়র স্কুল সার্টিফিকেট (জেএসসি) পরীক্ষাকেন্দ্র পরিদর্শন শেষে তিনি সাংবাদিকদের বলেন, “হরতালে কোমলমতি পরীক্ষার্থীরা চরম ভোগান্তি, চাপ, আতঙ্ক-ভীতি ও অনিশ্চয়তার মধ্যে পড়ে, তাদের ফল খারাপ হয়।”

সারা দেশে বিভিন্ন পর্যায়ে চার কোটি পরীক্ষার্থীর ভবিষ্যতের কথা বিবেচনায় নিয়ে ‘জানমাল ও অর্থনীতি বিধ্বংসী’ হরতালের নামে পরীক্ষার্থীদেরকে জিম্মি না করতে বিরোধীদলের প্রতি আহ্বান জানান মন্ত্রী।
স্থানীয় সাংসদ মোস্তফা জালাল মহীউদ্দিন, মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদপ্তরের মহাপরিচালক অধ্যাপক ফাহিমা খাতুন, ঢাকা বোর্ডের চেয়ারম্যান অধ্যাপক তাসলিমা বেগমও এ সময় উপস্থিত ছিলেন।
হরতালের কারণে সূচি অনুযায়ী প্রথম দিনের জেএসসি-জেডিসি পরীক্ষা শুরু করতে না পারায় ক্ষোভ প্রকাশ করেন শিক্ষামন্ত্রী।
এই ঘটনাকে জাতির জন্য ‘বেদনাদায়ক’ উল্লেখ করে নাহিদ বলেন, বিরোধীদলের নেতাকর্মীরা ‘ক্ষমতার মোহে’ শিক্ষার্থীদের কথা ভুলে গিয়ে ধ্বংসের রাজনীতিতে মেতেছেন।
সংসদে গিয়ে আলোচনার মাধ্যমে রাজনৈতিক সংকট সমাধানেরও পরামর্শ দেন নাহিদ।
পরে মন্ত্রী আলিয়া মাদ্রাসায় জুনিয়ার দাখিল সার্টিফিকেটের (জেডিসি) পরীক্ষা কেন্দ্র ঘুরে দেখেন এবং শিক্ষার্থীদের অভিভাবকদের সঙ্গে কথা বলেন।
বৃহস্পতিবার সকাল ১০টা থেকে বেলা ১টা পর্যন্ত জেএসসিতে ইংরেজি প্রথম পত্র এবং জেডিসিতে আরবি দ্বিতীয় পত্রের পরীক্ষা হয়।
এবার জেএসসিতে ১৫ লাখ ৮৭ হাজার ৩১৩ জন এবং জেডিসিতে তিন লাখ ১৫ হাজার ৪৩৩ জন ছাত্রছাত্রী পরীক্ষা দিচ্ছে।সব মিলিয়ে পরীক্ষার্থীর সংখ্যা ১৯ লাখ দুই হাজার ৭৪৬ জন।
গত ৪ নভেম্বর থেকে এ পরীক্ষা শুরুর কথা থাকলেও বিরোধী দলের হরতালের কারণে ৪ ও ৬ নভেম্বরের পরীক্ষা পিছিয়ে দেয়া হয়।
৪ নভেম্বর জেএসসিতে বাংলা প্রথম পত্র এবং ৬ নভেম্বর বাংলা দ্বিতীয় পত্রের পরীক্ষা হওয়ার কথা ছিল। আর জেডিসিতে ৪ নভেম্বর কোরআন মাজিদ ও তাজবিদ এবং ৬ নভেম্বর আরবি প্রথম পত্রের পরীক্ষা হওয়ার কথা ছিল।
নির্দলীয় সরকারের দাবিতে ৪, ৫ ও ৬ নভেম্বর সারা দেশে এই হরতাল করে বিএনপি নেতৃত্বাধীন ১৮ দেলীয় জোট।
ফলে পরীক্ষা শুরুর আগের দিন সূচি বদলাতে বাধ্য হয় কর্তৃপক্ষ। ৪ নভেম্বরের পরীক্ষা হবে ৮ নভেম্বর শুক্রবার দুপুর সোয়া ২টা থেকে। আর ৬ নভেম্বরের পরীক্ষা ৯ নভেম্বর শনিবার সকাল ১০টা থেকে শুরু হবে।

শেয়ার