মেদ কমাতে কর বৃদ্ধি!

fat
সমাজের কথা ডেস্ক॥ মেদ কমাতে খাবারে অতিরিক্ত কর বসিয়েছে মেক্সিকো। ঠান্ডা, মিষ্টি পানীয় এবং জাঙ্ক ফুডের উপর অতিরিক্ত কর বসাতে বিল পাশ হয়েছে মেক্সিকোর পার্লামেন্টে।
স্থূলতার সমস্যা সামাল দিতে একেই সেরা উপায় বলে মনে করছে দেশটি। ‘দ্য গার্ডিয়ান’ পত্রিকা এ খবর দিয়েছে।

বিশ্বে স্থূলতার সমস্যায় ভোগা দেশগুলোর মধ্যে মেক্সিকোতে এ হার অনেক বেশি। এ হার যুক্তরাষ্ট্রকেও ছাড়িয়ে গেছে।

জাতিসংঘের হিসাবমতে, মেক্সিকোর প্রায় ৩২ দশমিক ৮ শতাংশ মানুষই ওজন বেড়ে যাওয়ার সমস্যায় ভুগছে। যেখানে আমেরিকায় এ হার ৩১ দশমিক ৮ শতাংশ।

স্থূলতার কারণে বিপজ্জনক হারে বাড়ছে হৃদরোগ, ডায়াবেটিসসহ নানা অসুখ। শিশুরাও আক্রান্ত হচ্ছে নানা জটিল রোগে। দেশটির ৯ শতাংশেরও বেশি শিশু ভুগছে ডায়াবেটিসে।

আর তাই এ সমস্যা সমাধানের কথা চিন্তা করেই তৈলাক্ত ও মশলাদার খাবারের ওপর অতিরিক্ত ৮ শতাংশ কর বসাচ্ছে মেক্সিকো সরকার।

সরকারি পরিসংখ্যানে বলা হয়েছে, বছরে একজন মেক্সিকোবাসী ৪৩ গ্যালন হারে কোকা কোলা জাতীয় কোমল পানীয় পান করেন। বিশ্বে এ হার সর্বোচ্চ।

তাই ঠান্ডা পানীয়ের দামও লিটারে ১ পেসো করে বাড়ানো হচ্ছে। এছাড়া নানা ধরনের খাবারের মধ্যে কোনটি স্বাস্থ্যকর ও কোনটি অস্বাস্থ্যকর তাও চিহ্নিত করে দেয়ার কর্মসূচি নেবে সরকার।

মেক্সিকোর প্রেসিডেন্ট এনরিক পেনা নিয়েতো দেশের মানুষের স্থূলতা বৃদ্ধির সমস্যায় উদ্বেগ প্রকাশ করে বলেছেন, “দেশে স্থূলতা মহামারি আকার নিয়েছে। এ অবস্থায় হাত গুটিয়ে বসে থাকা যায় না।” তিনি মেক্সিকোবাসীদেরকে জীবনধারা পরিবর্তনেরও আহ্বান জানান।

মেক্সিকোর খাবার প্রস্তুতকারীরা অবশ্য এতে অখুশি। তারা এ করকে গরিবদের জন্য বোঝা আখ্যা দিয়ে এতে কোনো ফল হবে না বলে মন্তব্য করেছে।

স্থূলতা রোধে খাবারে কর বসানোর ঘটনা অবশ্য এটিই প্রথম নয়। এর আগেও একাধিক দেশ মেদ বাড়ায় এমন কিছু খাবার ও পানীয়ে অতিরিক্ত কর বসিয়েছে। এর মধ্যে আছে নরওয়ে, হাঙ্গেরি, অস্ট্রেলিয়া ও ডেনমার্ক।

শেয়ার