সরকারি সম্পদ আত্মসাতের অভিযোগ পাইকগাছায় বিএনপি নেতা চেয়ারম্যান বাচ্চুর ১০ হাজার টাকা জরিমানা

পাইকগাছা (খুলনা) প্রতিনিধি॥ পাইকগাছায় এক ইউপি চেয়ারম্যানকে সরকারি সম্পদ আত্মসাতের অভিযোগে জরিমানা ও দন্ড প্রদান করা হয়েছে। উপজেলা নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট সরকারি কাঠ আত্মসাত করার অভিযোগে ইউপি চেয়ারম্যান কাজী আব্দুস সালাম বাচ্চুকে ১০ হাজার টাকা জরিমানা ও অনাদায়ে ১৫ দিনের বিনাশ্রম কারাদন্ড প্রদান করেছেন।
জানা গেছে, উপজেলার গদাইপুর ইউপি চেয়ারম্যান কাজী আব্দুস সালাম বাচ্চু ঘটনার দিন গত বৃহস্পতিবার বিকালে ইউনিয়ন পরিষদে গচ্ছিত প্রায় ৩০ হাজার টাকা মূল্যের সরকারি কাঠ ব্যক্তিগত কাজে ব্যবহারের উদ্দেশ্যে গদাইপুর বাজার সংলগ্ন স’মিল থেকে চেরাই করে নছিমনযোগে নিয়ে যাচ্ছিলেন। এ খবর জানতে পেরে উপজেলা নির্বাহী অফিসারের নির্দেশক্রমে থানা পুলিশ নছিমনসহ কাঠগুলো জব্দ করে। বিষয়টি জানাজানি হলে সংশ্লিষ্ট চেয়ারম্যান তড়িঘড়ি করে ইউপি মেম্বরদের বাড়ীতে বাড়ীতে গিয়ে রেজুলেশন খাতায় স্বার করার মাধ্যমে শাক দিয়ে মাছ ঢাকার ব্যর্থ চেষ্টা করেন। এদিকে এ ঘটনায় তার বিরুদ্ধে ভ্রাম্যমান আদালতে একটি মামলা করা হয়। যার মোবাইল কোর্ট মামলা নং- ৭০/১৩। ভ্রাম্যমান আদালতের মাধ্যমে উপজেলা নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট ও উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোঃ মোমিনুর রশীদ স্থানীয় সরকার (ইউনিয়ন পরিষদ) আইন’০৯ এর ৫১ ধারার অপরাধে ৮৯ ধারার বিধান মতে সরকারি সম্পদ আত্মসাত চেষ্টার অভিযোগে সংশ্লিষ্ট ইউপি চেয়ারম্যান কাজী আব্দুস সালাম বাচ্চুকে ১০ হাজার টাকা জরিমানা ও অনাদায়ে ১৫ দিনের বিনাশ্রম কারাদন্ড প্রদান করেন। এ ব্যাপারে ওসি এম. মসিউর রহমান জানান, নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেটের আদেশটি ইতিমধ্যে থানায় এসে পৌছেছে। নির্দেশ মোতাবেক জব্দকৃত কাঠগুলো উপজেলা কৃষি অফিসারের উপস্থিতিতে নিলামে বিক্রির জন্য প্রয়োজনীয় পদপে গ্রহণ করা হয়েছে বলে তিনি জানান। উল্লেখ্য, ইউপি চেয়ারম্যান ও বিএনপির প্রভাবশালীনেতা বাচ্চুর বিরুদ্ধে ইতোপূর্বে মতার অপব্যবহার, গ্রামপুলিশ ও দফাদারদের সাথে অসদাচরণ সহ নানাবিধ অনিয়মের অভিযোগ রয়েছে।

শেয়ার