মহম্মদপুরে হরতাল চলাকালে ছাত্রলীগ-বিএনপি সংঘর্ষ ॥ আহত ৫

মহম্মদপুর(মাগুরা)প্রতিনিধি॥ মহম্মদপুরে পুলিশের গুলিতে ছাত্রদল নেতা মারুফ নিহত হওয়ার ঘটনায় বিএনপিসহ ১৮ দলের ডাকা সকাল-সন্ধ্যা হরতাল পালিত হয়েছে। দুপুরে বিএনপির কেন্দ্রীয় নেতা সাবেক মন্ত্রী নিতাই রায় চৌধুরীর নেতৃত্বে বিএনপি হরতাল সমর্থনে মিছিল বের করে। মিছিল থেকে হরতাল সমর্থকরা বাজারের দোকান পাটে ইট পাটকেল নিক্ষেপ করলে ছাত্রলীগ কর্মীরা মিছিলটি ধাওয়া দেয়। এসময় ২টি ককটেল বিস্ফোরণের ঘটনা ঘটে। এতে বিএনপির ৫ কর্মী আহত হয়েছে বলে মহম্মদপুর উপজেলা বিএনপির সভাপতি আলিমুজ্জামান দাবি করেছেন। পরে পুলিশ-বিজিবি ও র‌্যাব পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে আনে।
এ ব্যাপারে বিএনপির কেন্দ্রীয় নেতা ও সাবেক মন্ত্রী এ্যাড. নিতাই রায় চৌধুরী জানান, হরতালের সমর্থনে বিএনপির শান্তিপূর্ণ মিছিলে ছাত্রলীগ কর্মীরা সশস্ত্র হামলা চালিয়েছে। তিনি এ হামলার তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানান।
এ ব্যাপারে মহম্মদপুর উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি ইদুল শেখ জানান, বিএনপির মিছিলের সময় দোকান পাটে ইট-পাটকেল নিক্ষেপ ও মিছিল থেকে ২টি ককটেল বিস্ফোরণ ঘটিয়ে জনমনে আতংক সৃষ্টি করার চেষ্টা করে। এ সময় ছাত্রলীগের নেতা কর্মীরা মিছিলে ধাওয়া করে।
মহম্মদপুর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মনিরুল ইসলাম বলেন, উপজেলার আইন-শৃঙ্খলা পরিস্থিতি স্বাভাবিক রাখতে র‌্যাব ও বিজিবি মোতায়ন করা হয়েছে।

শেয়ার