অস্ত্র উদ্ধার ও হত্যা প্রচেষ্টা বেজপাড়ার চিহ্নিত ৫ সন্ত্রাসীর নামে র‌্যবের মামলা

নিজস্ব প্রতিবেদক॥ যশোরে অস্ত্র ও বোমাসহ সন্ত্রাসী আটকের ঘটনায় থানায় মামলা হয়েছে। এ মামলায় শংকরপুর এলাকার চিহ্নিত সন্ত্রাসী জুম্মনসহ ৫ জনকে আসামি করা হয়েছে। তারা হলো, যশোর কেন্দ্রীয় বাস টার্মিনাল এলাকার মৃত মুরাদের ছেলে জুম্মন, গোলপাতা মসজিদ এলাকার আলমগীর শেখের ছেলে ভুট্টো, তকাব্বরের ছেলে মতি ওরফে সিডিআই মতি, দেলোয়ার হোসেন শেখের ছেলে ইমরান হোসেন, স্বপন ওরফে শোভন ও চাঁচড়া রায়পাড়া এলাকার জালাল উদ্দিনের ছেলে সুজন ওরফে সুমন।
পুলিশ জানায়, আসামিরা এলাকায় ছিনতাই, চাঁদাবাজি, খুনসহ নানা ধরনের অপকর্ম চালিয়ে আসছে। তারই অংশ হিসেবে বুধবার বেলা ১১ টার দিকে জুম্মন ও সুজন অন্য আসামিদের ইন্দনে শহরের বেজপাড়া তালতলা এলাকায় আসে। সেখানে তারা পুলিশের সোর্স কিক শামিমের ভাই ইভেনকে হত্যার জন্য প্রস্তুতি নেয় বলে জানাগেছে। কিন্তু ওই সন্ত্রাসীদের দুর্ভাগ্য যে ওই সময় র‌্যাব-৬ যশোর ক্যাম্পের একটি টিম সেখানে উপস্থিত হয়। আর প্রানে বেচেঁ যায় ইভেন। তবে র‌্যাব এ সময় জুম্মনকে ধাওয়া করে আটক করতে না পারলেও সুমনকে আটক করে। আটক সুমনের কাছে জিজ্ঞাসাবাদে র‌্যাবের পক্ষ থেকে জানানো হয় তারা সিডিআই মতির পৃষ্ঠ পোষকতা থেকে সেখানে ইভেনকে হত্যা করার জন্য এসেছিল। এ ঘটনায় র‌্যাবের এসআই বায়েজিদ আকন বাদী হয়ে কোতোয়ালি থানায় মামলা করেছেন।

শেয়ার