হোয়াইট হাউসে ওবামার সঙ্গে মালালার সাক্ষাৎ

বারাক ওবামার সঙ্গে মালালা (ডান থেকে দ্বিতীয়) এবং মিশেল ও মালিয়া
বারাক ওবামার সঙ্গে মালালা (ডান থেকে দ্বিতীয়) এবং মিশেল ও মালিয়া

হোয়াইট হাউসে গিয়ে মার্কিন প্রেসিডেন্ট বারাক ওবামার সঙ্গে সাক্ষাৎ করলেন পাকিস্তানের নারী শিক্ষা আন্দোলনকর্মী ও কিশোরী ব্লগার মালালা ইউসুফজাই।

মার্কিন প্রেসিডেন্টের আমন্ত্রণে হোয়াইট হাউসে গিয়ে এ সাক্ষাৎ করেন মালালা। এ সময় ওবামার সঙ্গে ছিলেন ফার্স্ট লেডি মিশেল ও তাদের কন্যা মালিয়া।

সাক্ষাতে ১৬ বছর বয়সী কিশোরী মালালাকে ‘নারী শিক্ষার পক্ষে সাহসী ও অনুপ্রেরণামূলক কাজের’ জন্য ধন্যবাদ জানান ওবামা।

মালালার প্রশংসায় উচ্ছ্বসিত ফার্স্ট লেডি মিশেল তাকে উদ্দেশ্য করে বলেন, আমরা কেবল আমাদের কন্যা বা নাতনিদের শিক্ষিত করে গড়ে তোলার জন্যই পদক্ষেপ নিতে পারি না, বরং তাদের পরিবার, সমাজ এবং দেশের উন্নয়নের জন্যও কিছু করতে পারি।

বৃহস্পতিবার ইউরোপীয় ইউনিয়নের পক্ষ থেকে সম্মানজনক শাখারভ পুরস্কার জেতেন মালালা। সম্প্রতি তিনি নোবেল শান্তি পুরস্কার লাভ করছেন এমন গুঞ্জনও ওঠে। তবে শেষ পর্যন্ত সিরিয়ার রাসায়নিক অস্ত্র ধ্বংসে নিয়োজিত নেদারল্যান্ডসভিত্তিক রাসায়নিক অস্ত্র নিষিদ্ধকারী সংস্থা ওপিসিডব্লিউ’ই এ পুরস্কারটি জিতে নেয়।

উল্লেখ্য, নারী শিক্ষার পক্ষে কথা বলায় গত বছরের অক্টোবরে তালেবানদের গুলিতে মারাত্মক আহত হন মালালা। পাকিস্তানে প্রাথমিক চিকিৎসা শেষে সরকারি উদ্যোগে তাকে যুক্তরাজ্যের বার্মিংহাম হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়।

চিকিৎসা শেষে সেরে ওঠা মালালা বর্তমানে যুক্তরাজ্যেরই একটি স্কুলে পড়াশোনা করছেন। আহত হওয়ার পর থেকে এ পর্যন্ত বিভিন্ন মানবাধিকার সংগঠন ও সংস্থার পক্ষ থেকে কয়েক ডজন পুরস্কার জিতেছেন এই নারী শিক্ষা অধিকারকর্মী।

শেয়ার