২০শে মে ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, ৬ই জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
শতবর্ষি নৌকা বাইচ, লাখো মানুষের ভীড়

মহম্মদপুর (মাগুরা) প্রতিনিধি: মাগুরার মহম্মদপুর উপজেলার পলাশবাড়িয়া ইউনিয়নের ঝামা গ্রামে মধুমতি নদীতে শত বছরের ধারায় এবারো নৌকা বাইচ অনুষ্ঠিত হয়েছে। বুধবার দুপুরে ঝামা নৌকা বাইচ মেলা কমিটির আয়োজনে এই নৌকা বাইচ ও গ্রামীণ মেলা হয়।

এ উপলক্ষে মধুমতি নদীর দুই পাড়ে হাজার হাজার দর্শনার্থীর ঢল নামে। বুধবার সকাল থেকে নৌকা বাইচ দেখতে জেলার বিভিন্ন জায়গা থেকে জনসাধারণ, নারী পুরুষ, বৃদ্ধ, শিশু কিশোর মধুমতি নদীর দুই তীরে অবস্থান করে।

তীব্র রৌদ্র উপেক্ষা করে নৌকা বাইচ দেখতে মধুমতি নদীর দুই পাড়ে প্রায় ৫ কিলোমিটার এলাকা জুড়ে হাজারো দর্শক করতালি আর চিৎকারে মুখরিত করে তোলে নদীর দুই পাড়। দিনভর এমনই এক আনন্দঘন ও উৎসবমুখর পরিবেশে সৃষ্টি মধুমতি নদীর দুই পাড়।

মেলা উপলক্ষে নদীর দুই পাড়ে দোকান—পাট ও বাহারি পণ্যের পসরা সাজিয়ে বসেছে দোকানিরা। মেলা উপলক্ষে পথে পথে শোভা পেয়েছে বাহারি তোরণ।

মহম্মদপুর উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান বেবি নাজনীন জানান, প্রতি বছর দুর্গোৎসবের বিজয়া দশমী বিসর্জনের পরদিন ঝামা বাজার এলাকায় মধুমতি নদীতে আয়োজন করা হয় আবহমান বাংলার ঐতিহ্যবাহী নৌকা বাইচ প্রতিযোগিতা।

এদিন সকালের পর থেকেই পার্শ্ববর্তী ফরিদপুর, নড়াইল, রাজবাড়ি, গোপালগঞ্জসহ বিভিন্ন জেলা থেকে দর্শক আসতে থাকেন এ মেলায়। মেলা উপলক্ষে ঢাকা—চট্টগ্রামসহ সারা দেশ থেকে এলাকায় চলে আসেন অনেক দোকানিরা।

ঝামা, চরঝামা, দেউলি, দিগমাঝি, আড়মাঝি এবং হরেকৃষ্ণপুর এলাকায় হাজার হাজার দর্শক দু’চোখ ভরে নৌকা বাইচ উপভোগ করতে জড়ো হন মধুমতি নদীর দুই পাড়ে।

মেলায় আইন শৃঙ্খলা রক্ষায় পুলিশের কয়েক স্তরের নিরাপত্তার পাশাপাশি রাখা হয় সহস্রাধিক স্বেচ্ছাসেবক কর্মী। বিকাল তিনটায় থেকে শুরু হয় কাঙ্খিত নৌকা বাইচ। কাশার ঘণ্টার টং টং আওয়াজের তালে বাইচালরা বৈঠা টানে হেলেদুলে।

৬টি সুসজ্জিত বাইচের নৌকা প্রতিযোগিতায় অংশ গ্রহণ করেন। দর্শকদের কাছে অন্যরকম উপভোগ্য হয়ে ওঠে এ নৌকা বাইচ।

সাধারণ দর্শনার্থীরা জানান, ঝামা নৌকা বাইচ মেলা উপলক্ষে গ্রামীণ মেলায় বিভিন্ন ধরনের খেলনা, প্রসাধনী, ১ থেকে ৪ কেজি ওজনের বালিশ মিষ্টি, জিলাপী, রসগোল¬াসহ বিভিন্ন ধরনের মিষ্টি এবং নাগোর দোলা, নৌকাসহ বিভিন্ন ধরনের রাইড এসে শিশু কিশোরদের আনন্দ দেয়।

এ গুলো মেলার বিশেষ আকর্ষণ। এছাড়া বিভিন্ন জেলা থেকে মেলায় রুই, কাতলা, পাঙ্গাস, বোয়াল, মৃগেলসহ বিভিন্ন ধরনের বড় বড় মাছ উঠেছে।

উপজেলা মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান বেবী নাজনীনের সভাপতিত্বে নৌকা বাইচ প্রতিযোগিতা ও মেলার প্রধান অতিথি সাবেক যুব ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী, মাগুরা—২ আসনের সংসদ সদস্য ড. শ্রী বীরেন শিকদার বিজয়ী নৌকা মালিকদের হাতে প্রথম পুরস্কার, দ্বিতীয় পুরষ্কার ও তৃতীয় পুরষ্কার তুলে দেন।

এ সময় বিশেষ অতিথি ছিলেন সড়ক ও জনপদ বিভাগের অতিরিক্ত প্রধান প্রকৌশলী সৈয়দ আসলাম আলী, মহম্মদপুরের উপজেলা নির্বাহী অফিসার পলাশ মন্ডল, মহম্মদপুর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) বোরহান উল ইসলাম, উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আব্দুল মান্নান, সাধারণ সম্পাদক মোস্তফা কামাল সিদ্দিকী লিটন, উপজেলা যুবলীগের সভাপতি বিপ¬ব রেজা বিকো, উপজেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের সভাপতি সুজন শিকদার, সাধারণ সম্পাদক সাজ্জাদুর রহমান সাগর, সাবেক চেয়ারম্যান এম. রেজাউল করিম চুন্নু প্রমুখ।

সম্পাদক ও প্রকাশক : শাহীন চাকলাদার  |  ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : আমিনুর রহমান মামুন।
১৩৬, গোহাটা রোড, লোহাপট্টি, যশোর।
ফোন : বার্তা বিভাগ : ০১৭১১-১৮২০২১, ০২৪৭৭৭৬৬৪২৭, ০১৭১২-৬১১৭০৭, বিজ্ঞাপন : ০১৭১১-১৮৬৫৪৩
Email : samajerkatha@gmail.com
পুরাতন খবর
FriSatSunMonTueWedThu
 12
3456789
10111213141516
17181920212223
24252627282930
31 
স্বত্ব © samajerkatha :- ২০২০-২০২২
crossmenu linkedin facebook pinterest youtube rss twitter instagram facebook-blank rss-blank linkedin-blank pinterest youtube twitter instagram