১৬ই জুন ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, ২রা আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
ভূমিহীনমুক্ত হলো যশোরের ৭ উপজেলা

সমাজের কথা ডেস্ক: যশোর, খুলনা, বাগেরহাটসহ সারাদেশে নির্মিত ১০হাজার ৪১টি অবকাঠামোর সমন্বিত উদ্বোধন ও ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন করেছেন প্রধানমন্ত্রী। মঙ্গলবার সকালে গণভবন থেকে ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে এ প্রকল্পগুলোর উদ্বোধন ঘোষণা দেন প্রধানমন্ত্রী। এদিন সারাদেশে মোট ৩২টি জেলা ও ৩৯৪টি উপজেলা ভূমিহীন—গৃহহীনমুক্ত হলো। ৯হাজার ৯৯৫টি অবকাঠামোর উদ্বোধন এবং ৪৬টি অবকাঠামোর ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন করেন তিনি। এই প্রকল্পগুলোর ব্যয় ৯৭হাজার ৪৭১কোটি টাকা। এ সময় গণভবনের সঙ্গে যশোর জেলাসহ ৬৪টি জেলা প্রশাসকের কার্যালয়সহ সারাদেশে ১০১টি প্রান্ত ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে যুক্ত ছিলো।

যশোর: বর্নাঢ্য আয়োজনে ১৩৬জন গৃহহীন ও ভূমিহীন পরিবারের হাতে জেলা প্রশাসকের মাধ্যমে দলিল বুঝিয়ে দিয়ে ৩ উপজেলার ভূমিহীনমুক্ত ঘোষণা করেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। আশ্রয়ণ প্রকল্পের আওতায় ৫ম পর্যায়ের নতুন এই ৩টিসহ যশোর জেলায় মনিরামপুর উপজেলার বাদে ৭টি উপজেলা ভূমিহীনমুক্ত হয়েছে। একই সাথে যশোর ২৫০শয্যা জেনারেল হাসপাতালের ১০শয্যার আইসিইউ এবং মেডিকেল কলেজ ক্যাম্পাসে নবনির্মিত স্বতন্ত্র পরমণু পরীক্ষা ও গবেষণা কেন্দ্র এবং পিটিআই ভবনের নবনির্মিত মাল্টিপারপাস অডিটোরিয়ামসহ জেলা শিক্ষা প্রকৌশল অধিদপ্তর(ইইডি) অধিনে জেলা মোট ৬১টি প্রকল্প উদ্বোধন করেন প্রধানমন্ত্রী।

উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধানমন্ত্রী বলেন, বাংলাদেশে আর কোনো মানুষ গৃহহীন—ভূমিহীন থাকবে না। কোনো মানুষ অবহেলিত থাকবে না। সকলকেই মানসম্মত জীবনযাপন করার ব্যবস্থা করে দেবো ইনশাআল্লাহ। শিক্ষায়—দীক্ষায়, প্রযুক্তি, চিকিৎসায় আমাদের ছেলেমেয়েরা সকলেই আরো উন্নত জীবন পাবে সেটাই আমাদের লক্ষ্য।

যশোর জেলা প্রশাসনের কালেক্টরেট সভাকক্ষে জেলার প্রকল্প উদ্বোধনী অনুষ্ঠানের সভাপতিত্ব করেন জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ আবরাউল হাছান মজুমদার। এ সময় অন্যান্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন, স্থানীয় সরকারের উপ—পরিচালক রফিকুল হাসান, যশোর সরকারি এমএম কলেজের অধ্যক্ষ প্রফেসার মর্জিনা আক্তার, যশোর ২৫০শয্যা জেনারেল হাসপাতালের তত্ত্বাবধায়ক ডাক্তার হারুন অর রশিদ, জেলার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার বেলাল হোসাইন, জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি বীরমুক্তিযোদ্ধা শহীদুল ইসলাম মিলন, যশোরের ডেপুটি সিভিল সার্জন ডাক্তার নাজমুস সাদিক রাসেল, যশোর জেলা পরিষদের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা আসাদুজ্জামান, যশোর পৌরসভার মেয়র বীরমুক্তিযোদ্ধা হায়দার গনি খাঁন পলাশ, যশোর ২৫০ শয্যা জেনারেল হাসপাতালের আবাসিক মেডিকেল অফিসার ডাক্তার পার্থ প্রতিম চক্রবতীর্ প্রমুখ। ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে উদ্বোধনী অনুষ্ঠান শেষে জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ আবরাউল হাছান মজুমদার জেলার ৪টি উপজেলার ১৩৬জন গৃহহীন ও ভূমিহীন পরিবারের হাতে দলিল বুঝিয়ে দিয়েছেন। এর মধ্যে মণিরামপুর উপজেলায় ৫৮টি পরিবার, ঝিকরগাছা উপজেলার ৪১টি পরিবার, চৌগাছা উপজেলার ১২টি এবং অভয়নগর উপজেলার ২৫টি গৃহহীন ও ভূমিহীন পরিবারের হাতে দলিল বুঝিয়ে দেন। এর মাধ্যমে জেলার শুধুমাত্র মণিরামপুর উপজেলা বাদে জেলার ৭টি উপজেলা গৃহহীন ও ভূমিহীন মুক্ত হয়েছে।

কয়রা : খুলনার কয়রায় ৯ কোটি ৩১ লাখ টাকা ব্যয়ে আটটি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের নবনির্মিত ভবনের উদ্বোধন করলেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়ের আওতাধীন নবনির্মিত প্রাথমিক শিক্ষা অধিদপ্তর ভবনসহ ২০২৩টি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় ভবনসহ মোট ২০২৯ টি নবনির্মিত ভবনের উদ্বোধন করেন। এর মধ্যে ৯ কোটি ৩১ লাখ ৪২ হাজার টাকা ব্যয়ে কয়রা উপজেলার ৮টি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে নবনির্মিত ভবনের মধ্যে আমাদি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় ভবন, শরিষামুট গাজি নগর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় ভবন, দক্ষিণ মদিনাবাদ মুসাফিয়া প্রাথমিক বিদ্যালয় ভবন, তালবাড়িয়া প্রাথমিক বিদ্যালয় ভবন, ঠাকুরের চক প্রাথমিক বিদ্যালয় ভবন, ভান্ডারপোল সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয় ভবন, চান্নিরচক সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় ভবন ও দক্ষিণ হাতিয়ার ডাঙ্গা বিদ্যালয় ভবন।

গণভবণের সাথে ভার্চুয়ালী যুক্ত ছিলেন কয়রা উপজেলার নবাগত নির্বাহী অফিসার মো: কামাল হোসেন, উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিসার (ভারপ্রাপ্ত) মো: আনোয়ার হোসেন, উপজেলা প্রকৌশলী মো: দারুল হুদা, উপজেলা প্রাণিসম্পদ কর্মকর্তা কাজী মোস্তাকিম বিল¬াহ, কয়রা থানার ওসি তদন্ত মো. টিপু সুলতান উত্তর বেদকাশী ইউপি চেয়ারম্যান সরদার নুরুল ইসলাম। এ সময় কয়রা উপজেলার বিভিন্ন দপ্তরের কর্মকর্তা—কর্মচারী শিক্ষক শিক্ষার্থী সাংবাদিক সহ বিভিন্ন শ্রেণী পেশার মানুষ উপস্থিত ছিলেন।

ফকিরহাট : বাগেরহাটের ফকিরহাটে ২টি প্রকল্পের অধীনে ৯টি বিদ্যালয় উদ্বোধন করেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। বিদ্যালয়গুলো হলো শাহপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় ভবন, রাজপাট সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় ভবন, ফলতিতা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় ভবন, খাজুরা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় ভবন, দিয়াপাড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় ভবন, কাওসার আলী সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় ভবন, সাতশিকা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় ভবন, তেকাঠিয়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় ভবন, টাইন—নওয়াপাড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় ভবন প্রকল্প উদ্বোধন করা হয়।

প্রধানমন্ত্রীর এসব প্রকল্প উদ্বোধনকালে ফকিরহাট উপজেলা অডিটোরিয়ামে উপস্থিত ছিলেন খুলনা স্থানীয় সরকার বিভাগের পরিচালক মো: হুসাইন শওকত, উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান স্বপন দাশ, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা সাজিয়া সিদ্দিকা সেতু, উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান শেখ মোস্তাহিদ সুজা, সহকারী কমিশনার (ভূমি) আসাদুর রহমান, অফিসার ইনচার্জ (ওসি) আশরাফুল আলম, উপজেলা প্রকৌশলী আজিজুর রহমান, কৃষি কর্মকর্তা শেখ সাখাওয়াত হোসেন, প্রাণি সম্পদ কর্মকর্তা জাহিদুর রহমানসহ বিভিন্ন কর্মকর্তা, জনপ্রতিনিধি, ইউপি সচিব ও গণমাধ্যমকর্মী উপস্থিত ছিলেন।

সম্পাদক ও প্রকাশক : শাহীন চাকলাদার  |  ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : আমিনুর রহমান মামুন।
১৩৬, গোহাটা রোড, লোহাপট্টি, যশোর।
ফোন : বার্তা বিভাগ : ০১৭১১-১৮২০২১, ০২৪৭৭৭৬৬৪২৭, ০১৭১২-৬১১৭০৭, বিজ্ঞাপন : ০১৭১১-১৮৬৫৪৩
Email : samajerkatha@gmail.com
পুরাতন খবর
FriSatSunMonTueWedThu
 123456
78910111213
14151617181920
21222324252627
282930 
স্বত্ব © samajerkatha :- ২০২০-২০২২
crossmenu linkedin facebook pinterest youtube rss twitter instagram facebook-blank rss-blank linkedin-blank pinterest youtube twitter instagram