২৩শে এপ্রিল ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, ১০ই বৈশাখ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

সমাজের কথা ডেস্ক : দক্ষিণ—পশ্চিমাঞ্চল জুড়ে নানা কর্মসূচিতে মহান বিজয় দিবস উদযাপিত হয়েছে। শনিবার সূর্যোদয়ের সাথে সাথে বিজয় দিবসের নানা কর্মসূচি পালন শুরু হয়। সূর্যোদয়ের সাথে সাথে সরকারি, আধাসরকারি, স্বায়ত্তশাসিত এবং বেসরকারি ভবন ও প্রতিষ্ঠানসমূহে জাতীয় পতাকা উত্তোলন এবং শহরের প্রধান প্রধান সড়ক ও সড়ক দ্বীপসমূহ জাতীয় পতাকা দ্বারা সজ্জিত করা হয়। এরপর বর্ণাঢ্য শোভযাত্রা, শহিদদের প্রতি শ্রদ্ধাঞ্জলি অর্পণ, আলোচনাসভা, সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান, প্রতিযোগিতা, পুরস্কার বিতরণ ইত্যাদি।

কেশবপুর যশোর) প্রতিনিধি জানান, কেশবপুর উপজেলা প্রশাসনের বঙ্গবন্ধুর ম্যুরালে পুষ্পস্তবক অর্পণ, জাতীয় পতাকা উত্তোলন, কুচকওয়াজ, শরীরচর্চা প্রদর্শনী, স্বাস্থ্যসেবা প্রদান, মুক্তিযোদ্ধাদের সংবর্ধনা প্রদান, আলোচনা সভা, হাসপাতাল ও এতিমখানায় উন্নতমানের খাবার পরিবেশন, প্রবীণদের হাটা প্রতিযোগিতা, সৌখিন ফুটবল প্রতিযোগিতা, মহিলাদের ক্রীড়া প্রতিযোগিতা ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান হয়েছে। উপজেলা নির্বাহী অফিসার মো. তুহিন হোসেনের সভাপতিত্বে মুক্তিযোদ্ধা কমপ্লেক্সে অনুষ্ঠিত আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন উপজেলা চেয়ারম্যান মুক্তিযোদ্ধা কাজী রফিকুল ইসলাম।

এদিকে উপজেলা আওয়ামী লীগ নেতৃবৃন্দকে সাথে নিয়ে যশোর—৬ (কেশবপুর) আসনের এমপি শাহিন চাকলাদার বিজয়স্তম্ভে পুষ্পমাল্য অর্পণ করেন।

খুলনা প্রতিনিধি জানান, খুলনায় যথাযোগ্য মর্যাদায় শনিবার মহান বিজয় দিবস উদযাপিত হয়। গল্ল¬ামারী শহিদ স্মৃতিসৌধে পুষ্পমাল্য অর্পণ করে শ্রদ্ধা নিবেদন করেন মহানগর ও জেলা মুক্তিযোদ্ধা কমান্ড, শ্রম ও কর্মসংস্থান প্রতিমন্ত্রী বেগম মন্নুজান সুফিয়ান, কেসিসি’র মেয়র তালুকদার আব্দুল খালেক, বিভাগীয় কমিশনার হেলাল মাহমুদ শরীফ, পুলিশ কমিশনার মোজাম্মেল হক, রেঞ্জ ডিআইজি মঈনুল হক, জেলা প্রশাসক খন্দকার ইয়াসির আরেফীন, সরকারি—বেসরকারি দপ্তর, খুলনা বেতার, শিক্ষা প্রতিষ্ঠান, আওয়ামী লীগ এবং সহযোগী সংগঠন, খুলনা প্রেসক্লাব, সাংবাদিক ইউনিয়ন, বিভিন্ন রাজনৈতিক দলের নেতৃবৃন্দসহ সামাজিক—সাংস্কৃতিক সংগঠনের প্রতিনিধিরা।

সকাল সাড়ে আটটায় খুলনা জেলা স্টেডিয়ামে আনুষ্ঠানিকভাবে জাতীয় পতাকা উত্তোলন করেন খুলনার বিভাগীয় কমিশনার হেলাল মাহমুদ শরীফ। পরে সেখানে বীর মুক্তিযোদ্ধা, পুলিশ, আনসার—ভিডিপি, বিএনসিসি, ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্স, স্কুল, কলেজ, মাদরাসাসহ বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠান, শিশু—কিশোর সংগঠন, কারারক্ষী, বাংলাদেশ স্কাউট, রোভার স্কাউট ও গার্লস গাইড এর অংশগ্রহণে কুচকাওয়াজ অনুষ্ঠিত হয়। বিভাগীয় কমিশনার প্রধান অতিথি হিসেবে কুচকাওয়াজে সালাম গ্রহণ করেন। পুলিশ কমিশনার মোজাম্মেল হক, রেঞ্জ ডিআইজি মঈনুল হক, খুলনার জেলা প্রশাসক খন্দকার ইয়াসির আরেফীন এবং পুলিশ সুপার মোহাম্মদ সাঈদুর রহমান এসময় উপস্থিত ছিলেন।

খুলনা সিটি কর্পোরেশনের উদ্যোগে নগরভবনে শিশুদের চিত্রাংকন প্রতিযোগিতা, আলোচনা সভা ও পুরস্কার বিতরণ অনুষ্ঠিত হয়। এতে প্রধান অতিথি ছিলেন সিটি কর্পোরেশনের মেয়র তালুকদার আব্দুল খালেক।

দুপুরে খুলনা জেলা শিল্পকলা একাডেমি অডিটোরিয়ামে বীর মুক্তিযোদ্ধা ও শহীদ পরিবারের সদস্যদের সংবর্ধনা এবং ‘জাতির পিতার স্বপ্নের সোনার বাংলা বিনির্মাণে মুক্তিযুদ্ধের চেতনা ধারণ ও ডিজিটাল প্রযুক্তির সর্বোত্তম ব্যবহার এবং বিজয় দিবসের তাৎপর্য’ শীর্ষক আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়। অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন বিভাগীয় কমিশনার হেলাল মাহমুদ শরীফ। বিশেষ অতিথি ছিলেন পুলিশ কমিশনার মোজাম্মেল হক, অতিরিক্ত রেঞ্জ ডিআইজি জয়দেব চৌধুরী, পুলিশ সুপার মোহাম্মদ সাঈদুর রহমান, বীর মুক্তিযোদ্ধা ও সংবিধান প্রণেতা অ্যাডভোকেট এনায়েত আলী, জেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদের সাবেক কমান্ডার সরদার মাহাবুবার রহমান ও বীর মুক্তিযোদ্ধা মকবুল হোসেন মিন্টু। এতে সভাপতিত্ব করেন খুলনার জেলা প্রশাসক খন্দকার ইয়াসির আরেফীন।

পাইকগাছা (খুলনা) প্রতিনিধি জানান, পাইকগাছায় যথাযোগ্য মর্যাদায় মহান বিজয় দিবস উদযাপিত হয়েছে। দিবসটি উপলক্ষে শনিবার প্রত্যুষে উপজেলা প্রশাসন, সংসদ সদস্য, উপজেলা পরিষদ, মুক্তিযোদ্ধা সংসদ, পৌরসভা, থানা, লোনাপানি কেন্দ্র, পাইকগাছা সরকারি কলেজসহ বিভিন্ন রাজনৈতিক, সামাজিক ও সাংস্কৃতিক সংগঠন ও শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের পক্ষ থেকে স্মৃতিসৌধ এবং বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে পুষ্পস্তবক ও পুষ্পমাল্য অর্পণ করা হয়। বিকাল ৩ টায় সরকারি বালিকা উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে মহিলাদের ক্রীড়া অনুষ্ঠান হয়। অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন, উপজেলা নির্বাহী অফিসারের সহধর্মিনী ও লেডিস ক্লাবের সভাপতি, খুলনা মেট্রো পলিটন ম্যাজিস্ট্রেট সুমাইয়া কাওছার। এছাড়া সরকারি কলেজ মাঠে উপজেলা প্রশাসন বনাম পৌরসভা ফুটবল একাদশের মধ্যে প্রীতি ফুটবল প্রতিযোগিতা ও সন্ধ্যা ৬টায় উপজেলা পরিষদ চত্বরে মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠিত হয়। উপজেলা নির্বাহী অফিসার মুহাম্মদ আল—আমিনের সভাপতিত্বে উপজেলা প্রশাসন আয়োজিত দিনব্যাপি কর্মসূচিতে প্রধান অতিথি ছিলেন, উপজেলা চেয়ারম্যান আনোয়ার ইকবাল মন্টু।

পাইকগাছার রূপসী বাংলা সমাজ কল্যাণ ও সাহিত্য পরিষদের উদ্যোগে মহান বিজয় দিবস উদযাপিত হয়েছে। সংগঠনের সভাপতি অশোক কুমার ঘোষের সভাপতিত্বে মহান বিজয় দিবসের অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন, প্রতিষ্ঠাতা বেগম শামছুন্নাহার লিয়াকত, সহ—সভাপতি পঞ্চানন সরকার ও চিত্তরঞ্জন মন্ডল, সাধারণ সম্পাদক সমীরণ কুমার ঢালী, প্রচার ও দপ্তর সম্পাদক সাংবাদিক মুজিবর রহমান মলি¬ক, সাংগঠনিক সম্পাদক মিনারুল ইসলাম, মহিলা সম্পাদিকা রেবেকা খাতুন, প্রজিৎ কুমার রায়, লিয়াকত হোসেন ও আলম।

শালিখা (মাগুরা) প্রতিনিধি জানান, মাগুরার শালিখাতে সকাল সাড়ে সাতটায় তালখড়ী শহীদ স্মৃতিস্তম্ভে ফুলদিয়ে শ্রদ্ধা জানানো হয়। দায়িত্বে ছিলেন সহকারী কমিশনার ভূমি উম্মে তাহমিনা মিতু। উপজেলা চত্বরে বঙ্গবন্ধুর ম্যুরালে উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান অ্যাড. কামাল হোসেনের নেতৃত্বে ফুল দিয়ে শুভেচ্ছা জানান উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা হরেকৃষ্ণ অধিকারীর নেতৃত্বে উপজেলা প্রশাসন, বীর মুক্তিযোদ্ধা সাবেক কমান্ডার আবু বক্কার মাষ্টারের নেতৃত্ব মুক্তিযোদ্ধাগণ, শালিখা থানা অফিসার ইনচার্জ নাসির উদ্দিন শালিখা থানা,উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি অ্যাড. শ্যমল কুমার দে ও সাধারণ সম্পাদক ৎইলিয়াচুর রহমানের নেতৃত্বে উপজেলা আওয়ামী লীগসহ সহ বিভিন্ন সংগঠন, শিক্ষা প্রতিষ্ঠান ও সংস্থা।

বীর মুক্তিযোদ্ধা ও শহীদ মুক্তিযোদ্ধা পরিবারের সদস্যদের সংবর্ধনা অনুষ্ঠন, আলোচনা ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা হরেকৃষ্ণ অধিকারী। প্রধান অতিথি হিসাবে বক্তব্য রাখেন উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান অ্যাড.কামাল হোসেন। অনুষ্ঠানের সঞ্চালক ছিলেন উপজেলা পরিসংখ্যান অফিসার নাজমুল হুসাইন।

সাতক্ষীরা প্রতিনিধি জানান, নতুন প্রজন্মের মধ্যে জাতীয় পতাকা হস্তান্তরের মাধ্যমে সাতক্ষীরায় পালিত হয়েছে মহান বিজয় দিবস। পতাকা উত্তোলন ও বেলুন ওড়ানোর মাধ্যমে দিবসটির শুভসূচনা করেন জেলা প্রশাসক মো. হুমায়ুন কবির। উপস্থিত ছিলেন নবাগত পুলিশ সুপার মো. মতিউর রহমান সিদ্দিক।

ফকিরহাট (বাগেরহাট) প্রতিনিধি জানান, সূর্যোদয়ের পরপরই উপজেলা কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে শ্রদ্ধাঞ্জলি অর্পণ করে শহিদদের প্রতি শ্রদ্ধা জানান উপজেলা পরিষদ, উপজেলা প্রশাসন, মডেল থানা পুলিশ, উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদ ও বিভিন্ন রাজনৈতিক, সামাজিক সাংস্কৃতিক সংগঠনসহ সর্বস্তরের মানুষ। ১১টায় বীর মুক্তিযোদ্ধা ও শহীদ মুক্তিযোদ্ধা পরিবারের সদস্যদের সংবর্ধনা অনুষ্ঠিত হয়। এদিন বিকেলে প্রীতি ফুটবল ম্যাচ, পুরস্কার বিতরণর এবং সন্ধ্যায় মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়েছে।

পৃথক অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান স্বপন দাশ, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা সাজিয়া সিদ্দিকা সেতু, সহকারী পুলিশ সুপার (সার্কেল) মো. রবিউল ইসলাম শামিম, উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান শেখ মোস্তাহিদ সুজা, মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান তহুরা খানম, এসিল্যান্ড এম আব্দুল¬াহ ইবনে মাসুদ আহমেদ, মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মো. আশরাফুল আলম, উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. এএসএস মফিদুল ইসলাম প্রমূখ।

নিজস্ব প্রতিবেদক, মণিরামপুর থেকে জানান, মহান বিজয় দিবসে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের প্রতিকৃতিতে ফুলেল শ্রদ্ধা জানান যশোর—০৫ (মণিরামপুর) আসনের স্বতন্ত্র সংসদ সদস্য পদপ্রার্থী কেন্দ্রীয় ধর্ম বিষয়ক উপ—কমিটির সদস্য ও জেলা কৃষকলীগের সহ—সভাপতি এস এম ইয়াকুব আলী। শনিবার উপজেলা পরিষদের সামনে বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে পুষ্পস্তবক অর্পণ করে শ্রদ্ধা জানান এস এম ইয়াকুব আলী।

এসময় তার সাথে ছিলেন উপজেলা আওয়ামী লীগের সাবেক যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক জিএম মজিদ, উপজেলা পরিষদের সাবেক ভাইস চেয়ারম্যান মিকাইল হোসেন, আওয়ামী লীগ নেতা গৌর কুমার ঘোষ, সুব্রুত ব্যানাজীর্, বাবুল আক্তার বাবলু, উপজেলা যুবলীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক স ম আলাউদ্দীন, উপাজেলা কৃষকলীগের সভাপতি আবুল ইসলাম, নেহালপুর ইউপি চেয়ারম্যান এম এম ফারুক হুসাইন প্রমুখ।

সাড়াতলা (শার্শা) প্রতিনিধি জানান, মহান বিজয় দিবসে যশোরের শার্শা উপজেলার সীমান্তবর্তী ডিহি ইউনিয়নের কাশিপুরে ৭১'র মুক্তিযুদ্ধের রণাঙ্গনের বীরযোদ্ধা বীরশ্রেষ্ঠ ল্যান্স নায়েক নূর মোহাম্মদ শেখ’র সমাধিসৌধে তাঁর প্রতি হাজারো মানুষ বিনম্র শ্রদ্ধা জানিয়েছেন। কাশিপুর গ্রামে অবস্থিত বীরশ্রেষ্ঠের সমাধিস্থলে ফুলেল শ্রদ্ধা জানাতে বিজয় দিবসের ভোর সকাল হতেই শীত আর কুয়াশা উপেক্ষা করে নানা শ্রেণী পেশার সব বয়সী মানুষ সমবেত হন।

শ্রদ্ধাঞ্জলি অর্পণ করেন দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন শার্শা আসনে আওয়ামী লীগের নৌকা প্রতীকের প্রার্থী বর্তমান সংসদ সদস্য শেখ আফিল উদ্দিন, স্বতন্ত্র প্রার্থী জেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আশরাফুল আলম লিটন, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা নয়ন কুমার রাজবংশী, উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান ও আওয়ামী লীগ সভাপতি বীরমুক্তিযোদ্ধা সিরাজুল হক মঞ্জু, থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মনিরুজ্জামানের নেতৃত্বে উপজেলা প্রশাসন, কেন্দ্রীয় যুবলীগ নেতা নাজমুল ইসলামসহসহ বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠান, ব্যক্তি, স্বেচ্ছাসেবী, এনজিও ও সাংস্কৃতিক সংগঠন। পরে সকাল ৯ টার দিকে বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ বিজিবি মহাপরিচালক এর পক্ষে যশোর ৪৯ বিজিবির এডি সোহেল আল মুজাহিদ নেতৃত্বে বিজিবির একদল সুসজ্জিত দলের উপস্থিতিতে বীরশ্রেষ্ঠের সমাধিস্থলে গার্ড অফ অনার প্রদান ও শ্রদ্ধাঞ্জলি অর্পণ করা হয়। এ সময় বীরশ্রেষ্ঠ নূর মোহাম্মদ শেখের পরিবারের সদস্যরা উপস্থিত ছিলেন।

কয়রা প্রতিনিধি জানান, মহান বিজয় দিবস উপলক্ষে কয়রায় বীর মুক্তিযোদ্ধাদের সংবর্ধনা প্রদান করা হয়েছে। সকাল ১১ টায় উপজেলা প্রশাসনের আয়োজনে উপজেলা পরিষদ প্রাঙ্গণে বীর মুক্তিযোদ্ধাদের সংবর্ধনা প্রদান করা হয়। এসময় উপজেলা যুব উন্নয়ন অফিসার রেজাউল করিমের পরিচালনায় ও উপজেলা নির্বাহী অফিসার কামাল হোসেনের সভাপতিত্বে সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান এস এস শফিকুল ইসলাম। বিশেষ অতিথি ছিলেন, উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান কমলেশ কুমার সানা, মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান নাছিমা আলম, সহকারী কমিশনার ভূমি বি. এম. তারিক — উজ — জামান, থানা অফিসার ইনচার্জ মিজানুর রহমান। বক্তব্য রাখেন বীর মুক্তিযোদ্ধা কেরামত আলী, বীর মুক্তিযোদ্ধার সন্তান অধ্যাপক মাসুদুর রহমান মন্টু, উপজেলা কৃষি অফিসার আব্দুলা আল মামুন, প্রাণিসম্পদ অফিসার ডা. কাজী মোস্তাইন বিল¬াহ, উওর বেদকাশী ইউ পি চেয়ারম্যান সরদার নূরুল ইসলাম কোম্পানি প্রমুখ।

কালিয়া (নড়াইল) প্রতিনিধি জানান, নড়াইলের কালিয়ায় উপজেলা কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে ফুলেল শুভেচ্ছা অর্পন করে শহীদদের প্রতি শ্রদ্ধা জানান উপজেলা পরিষদ, উপজেলা প্রশাসন, থানা পুলিশ, উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদ ও বিভিন্ন রাজনৈতিক, সামাজিক সাংস্কৃতিক সংগঠনসহ সর্বস্তরের মানুষ। সকাল ১১টায় উপজেলা হলরুমে বীর মুক্তিযোদ্ধা ও শহীদ মুক্তিযোদ্ধা পরিবারের সদস্যদের সংবর্ধনা অনুষ্ঠিত হয়। এ সময় উপস্থিত ছিলেন, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা রুনু সাহা, উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান কৃষ্ণপদ ঘোষ প্রমুখ।

ফুলতলা (খুলনা) প্রতিনিধি জানান, ফুলতলা উপজেলা প্রশাসনের উদ্যোগে শনিবার সকাল সাড়ে ৮টায় স্থানীয় ডাবুর মাঠে আনুষ্ঠানিকভাবে জাতীয় পতাকা উত্তোলন, কুচকাওয়াজ ও ডিসপ্লে প্রদর্শণী করা হয়। বেলা ১১টায় শহীদ হাবিবুর রহমান মিলনায়তনে বীর মুক্তিযোদ্ধা, যুদ্ধাহত বীর মুক্তিযোদ্ধা ও শহীদ বীর মুক্তিযোদ্ধা পরিবারের সংবর্ধনা অনুষ্ঠান উপলক্ষে এক আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়। মুক্তিযোদ্ধা সংসদের সাবেক কমান্ডার কাজী জাফর উদ্দিনের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন উপজেলা নির্বাহী অফিসার তাসনীম জাহান। বিশেষ অতিথি ছিলেন উপজেলা পরিষদের প্যানেল চেয়ারম্যান কে এম জিয়া হাসান তুহিন, ওসি রফিকুল ইসলাম, বীর মুক্তিযোদ্ধা কাজী আশরাফ হোসেন আশু। অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন বীর শেখ রওশন আলী, ইউপি চেয়ারম্যান শরীফ মোহাম্মদ ভুইয়া শিপলু, মনিরুল ইসলাম সরদার ও ফারুক হোসেন মোল্যা, উপজেলা প্রকৌশলী ইয়াছির আ্রাফাত, সমাজসেবা কর্মকর্তা মো. শাহীন আলম, খাদ্য কর্মকর্তা তৈয়েবুর রহমান, প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা মো. রফিকুল ইসলাম, মহিলা বিষয়ক কর্মকর্তা ফারহানা ইয়াসমিন, বীর মুক্তিযোদ্ধা সুবোধ কুমার বসু, বীজ কর্মকর্তা আনোয়ার হোসেন, নির্বাচন কর্মকর্তা এস এম রোকনুজ্জামান, পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা সেলিনা খাতুন, উপজেলা শিক্ষা অফিসার শাহানাজ বেগম, আনসার ভিডিপি কর্মকর্তা সালমা খাতুন, বিআরডিবি কর্মকর্তা নাদিরা সুলতানা প্রমুখ।

বাগআঁচড়া প্রতিনিধি জানান, বাগআঁচড়া ও কায়বা ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের উদ্যোগে এক বিজয় মিছিল বের হয়। অনুরূপ শংকরপুর ইউনিয়ন পরিষদের উদ্যোগে চেয়ারম্যান গোবিন্দ চন্দ্র চ্যাটার্জীর নেতৃত্বে এক বিজয় র‌্যালি, দোয়া অনুষ্ঠান ও আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে।

নিজস্ব প্রতিবেদক, চৌগাছা থেকে জানান, সরকারি শাহাদৎ পাইলট হাই স্কুল মাঠে উপজেলা প্রশাসনের আয়োজনে বিজয় দিবসের কুচকাওয়াজ শেষে এ দিবসের তাৎপর্য নিয়ে আলোচনা করা হয়।

এছাড়া উপজেলা প্রশাসন উপজেলা পরিষদের বৈশাখী মঞ্চে বীর মুক্তিযোদ্ধাদের সংবর্ধনা অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। নবাগত উপজেলা নির্বাহী অফিসার সুস্মিতা সাহার সভাপতিত্বে উপস্থিত উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান অধ্যক্ষ ড.এম মোস্তানিছুর রহমান, সহকারী কমিশনার (ভূমি) গুজ্ঞন বিশ্বাস, থানার অফিসার ইনচার্জ ইকবাল বাহার চৌধুরী, ভাইস চেয়ারম্যান দেবাশীষ মিশ্র জয়, পৌর মেয়র নুর উদ্দীন আল মামুন হিমেলসহ উপজেলার বিভিন্ন রাজনৈতিক ,সামাজিক সংগঠনের নের্তৃনৃন্দ।

বাগেরহাট প্রতিনিধি জানান, বাগেরহাট জেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে শহরের দশানীস্থ মুক্তিযোদ্ধা স্মৃতিস্তম্ভে পুষ্পস্তবক অর্পণ করেন জেলা প্রশাসক খালিদ হোসেন। পরে জেলা পুলিশের পক্ষে পুলিশ সুপার আবুল হাসনাত খান, জেলা আওয়ামী লীগের পক্ষে সাধারণ সম্পাদক অ্যাড. ভুইয়া হেমায়েত উদ্দিন পুস্পস্তবক অর্পন করেন।

পরে সকাল সাড়ে ৮টায় শহরের শেখ হেলাল উদ্দিন স্টেডিয়ামে জাতীয় পতাকা উত্তোলন এবং পায়রা ওড়ানো হয়। বাগেরহাটবাসীর উদ্দেশ্যে বক্তব্য দেন জেলা প্রশাসক মোহা. খালিদ হোসেন।

এদিকে, মহান বিজয় দিবস উপলক্ষে বিচারপতি এ,টি মনোয়ার হোসেন স্মরণে ফ্রি মেডিকেল ক্যাম্পে অনুষ্ঠিত হয়েছে । শনিবার (১৬ ডিসেম্বর) সকাল১১ টায় বাগেরহাট জেলা সদরের সাবেকডাঙ্গা গ্রামে নিজ বাড়িতে তার পরিবার ও শুভাকাঙ্ক্ষীরা এই ক্যাম্পের আয়োজন করে। এ সময় উপস্থিত ছিলেন প্রয়াত বিচারপতির সহধর্মিনী আফরিনা মনোয়ার।

ফ্রি মেডিকেল ক্যাম্পের সার্বিক তত্ত্বাবধানে ছিলেন ইউনাইটেড মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের অধ্যাপক সার্জারি বিশেষজ্ঞ ডাক্তার রফিকুস সালেহীন। মেডিকেল ক্যাম্পে রোগী দেখেন ডাক্তার শরিফুল ইসলাম শরন, গাইনী বিশেষজ্ঞ অধ্যাপক ডাক্তার মেহেরুন্নেসা, অর্থোপেডিক্স বিশেষজ্ঞ ডাক্তার এম এ করিম, গাইনী বিশেষজ্ঞ ডাক্তার সেলিনা খাতুন, ডাক্তার ফয়সাল হোসেন ও ডাক্তার পারভেজ হোসাইন প্রমূখ চিকিৎসা সেবা দেন।

বাঘারপাড়া (যশোর) প্রতিনিধি জানান, যশোরের বাঘারপাড়ায় আনন্দ শোভাযাত্রা, বাঘারপাড়া স্বাধীনতা চত্তরে ফুল দেওয়া, আলোচনা সভা ও দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠানে সাবেক সিনিয়র সহ—সভাপতি হরিপদ রায়ের সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি ছিলেন যশোর—৪ আসনের সংসদ সদস্য রনজিত কুমার রায়। উপস্থিত বাঘারপাড়া পৌরসভার মেয়র কামরুজ্জামান বাচ্চু, বীর মুক্তিযোদ্ধা খন্দকার শহীদুল¬াহ, বাঘারপাড়া মহিলা কলেজের অধ্যক্ষ আজগার আলী, বাঘারপাড়া উপজেলা যুবলীগের আহবায়ক যুব নেতা রাজিব কুমার রায়, উপজেলা যুবলীগের যুগ্ম আহ্বায়ক জুলফিকার আলী জুলাই ও কামরুজ্জামান লিটন, উপজেলা যুব মহিলা লীগের আহবায়ক সালমা খাতুন, যুগ্ম আহ্বায়ক রনি ভৌমিক, ১ নং জহুরপুর ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক নূর মোহাম্মদ পাটোয়ারী, ইউপি চেয়ারম্যান আসাদুজ্জামান মিন্টু প্রমুখ।

এদিকে, সকাল সাড়ে ৯ টায় সরকারি উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে প্রধান অতিথি থেকে আনুষ্ঠানিক পতাকা উত্তোলন করেন উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান ভিক্টোরিয়া পারভীন সাথী। উপস্থিত ছিলেন উপজেলা নিবার্হী অফিসার হোসনে আরা তান্নি, থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকতার্ শাহাদত হোসেন। পরে বেলা ১১ টার দিকে উপজেলা পরিষদ প্রাঙ্গনে উপজেলা নির্বাহী অফিসার হোসনে আরা তান্নি’র সভাপতিত্বে বীর মুক্তিযোদ্ধাদের সংবর্ধনা প্রদান ও আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়। বিকালে পুরস্কার বিতরণ ও সন্ধ্যায় সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের মধ্য দিয়ে দিবসটি পালন করা হয়।

পাটকেলঘাটা প্রতিনিধি জানান, পাটকেলঘাটায় তালা উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি শেখ নুরুল ইসলামের নেতৃত্বে পাটকেলঘাটার প্রধান প্রধান সড়কে বিজয় র‌্যালি বের হয়। এদিকে পাটকেলঘাটা হারুণ অর রশিদ ডিগ্রী কলেজের এক র‌্যালি পাটকেলঘাটা বাজার প্রদক্ষিণ করে। সরুলিয়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যানের নেতৃত্বে বিজয় দিবস পালন করা হয়।

সম্পাদক ও প্রকাশক : শাহীন চাকলাদার  |  ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : আমিনুর রহমান মামুন।
১৩৬, গোহাটা রোড, লোহাপট্টি, যশোর।
ফোন : বার্তা বিভাগ : ০১৭১১-১৮২০২১, ০২৪৭৭৭৬৬৪২৭, ০১৭১২-৬১১৭০৭, বিজ্ঞাপন : ০১৭১১-১৮৬৫৪৩
Email : samajerkatha@gmail.com
পুরাতন খবর
FriSatSunMonTueWedThu
 1234
567891011
12131415161718
19202122232425
2627282930 
স্বত্ব © samajerkatha :- ২০২০-২০২২
crossmenu linkedin facebook pinterest youtube rss twitter instagram facebook-blank rss-blank linkedin-blank pinterest youtube twitter instagram