মোঃ আব্দুল আজিজ (পাইকগাছা) খুলনা॥ পাইকগাছায় পবিত্র ঈদুল আযহা উদযাপনের সকল প্রস্তুতি সম্পন্ন করা হয়েছে। শনিবার শান্তিপূর্ণ ও উৎসব মূখর পরিবেশে ঈদ উদযাপিত হবে বলে আশাবাদ ব্যক্ত করেছেন স্থানীয় প্রশাসনের দায়িত্বশীল কর্মকর্তারা। পাইকগাছা নাগরিক কমিটির সভাপতি মোস্তফা কামাল জাহাঙ্গীর জানান, অতিতের যে কোন সময়ের চেয়ে এবারের ঈদে ঘরমুখো মানুষ নির্বিঘেœ এলাকায় আসতে পেরেছে। বিশেষ করে পাইকগাছা-খুলনা প্রধান সড়ক দীর্ঘদিন জরাজীর্ণ ছিল। যে কারণে অনেকেই দূর্ভোগের কথা বিবেচনা করে এলাকায় আসতেন না। নাগরিক কমিটির আন্দোলন ও স্থানীয় সংসদ সদস্যের ঐকান্তিক প্রচেষ্টায় সড়কের সংস্কার কাজ প্রায় শেষ পর্যায়ে। এ জন্য এবারের ঈদে এ সড়কে কাউকে দূর্ভোগ পোহাতে হয়নি। পৌর মেয়র সেলিম জাহাঙ্গীর জানান, ইতোমধ্যে ইমাম পরিষদের সাথে বৈঠক করে ঈদের জামাতের স্থান ও সময় নির্ধারণ করা হয়েছে। সিদ্ধান্ত অনুযায়ী সিনিয়র মাদ্রাসার পৌরসভার কেন্দ্রীয় ঈদগাহ মাঠে সকাল ৮ টায় প্রধান ঈদের জামাত অনুষ্ঠিত হবে। আলহাজ্ব রহমত আলী জানান, বান্দিকাটী ঈদগাহ মাঠে সকাল ৮ টায় বাংলাদেশ জমঈয়’তে আহলে হাদিসের প্রধান ঈদের জামাত অনুষ্ঠিত হবে। ওসি আমিনুল ইসলাম বিপ্লব জানান, ঈদকে সামনে রেখে গুরুত্বপূর্ণ বিপনী বিতানসহ বাড়তি নিরাপত্তা জোরদার করা হয়েছে। বিশেষ করে রাতে পুলিশের বিশেষ টহল ব্যবস্থা রাখা হয়েছে। কেন্দ্রীয় ঈদগাহ মাঠে ঈদের নামাজ আদায় করবেন বলে পুলিশের এ কর্মকর্তা জানিয়েছেন। ইউএনও ফকরুল হাসান জানান, ইতোমধ্যে ঈদগাহ মাঠ পরিদর্শন সহ সকল প্রস্তুতি সম্পন্ন করা হয়েছে। তিনি ও উপজেলা চেয়ারম্যান এ্যাডঃ স ম বাবর আলী এবং পৌর মেয়র সেলিম জাহাঙ্গীর কেন্দ্রীয় ঈদগাহ মাঠে ঈদের নামাজ আদায় করবেন বলে জানিয়েছেন। সাবেক সংসদ সদস্য এ্যাডঃ সোহরাব আলী সানা নিজ গ্রাম গড়ইখালীতে ঈদের নামাজ আদায় ও এলাকাবাসীর সাথে ঈদের শুভেচ্ছা বিনিময় করবেন বলে জানিয়েছেন। এমপি পুত্র শেখ রাশেদুল ইসলাম রাসেল জানান, স্থানীয় সংসদ সদস্য এ্যাডঃ শেখ মোঃ নূরুল হক বর্তমানে হজ্বব্রত পালনের জন্য সৌদি আরব রয়েছেন। মুঠোফোনে তিনি দলীয় নেতাকর্মী ও এলাকাবাসীকে ঈদের শুভেচ্ছা জানিয়েছেন।

SHARE