ঝিনাইদহে ‘শিওর ক্যাশের’ বিরুদ্ধে উপবৃত্তির টাকা থেকে কমিশন নেওয়ার অভিযোগ

ঝিনাইদহ প্রতিনিধি॥ ঝিনাইদহে প্রাথমিকের শিক্ষার্থীদের উপবৃত্তির টাকা ওঠাতে শিওর ক্যাশের এজেন্টদের বিরুদ্ধে অর্থ নেওয়ার অভিযোগ উঠেছে। গত ৪দিন ধরে উপজেলার বিভিন্ন বাজারে টাকা উত্তোলন করতে গেলে তারা এসব টাকা নিচ্ছে। কোন কোন এজেন্টরা মিষ্টি খাওয়া বাবদ, কেউ খরচ বাবদ আবার কেউ কমিশন বলে নিচ্ছে। তবে একটি সূত্রবলছে এজেন্টদের টাকা নেওয়ার কোন নিয়ম নেই, সরকার এদেরকে অনেক বেশী কমিশন দিচ্ছে।
সরেজমিনে গিয়ে দেখা যায়, সাধারন মানুষের চোখ ফাঁকি দেওয়ার জন্য আগে থেকে খরচের টাকা নেওয়া হচ্ছে। পরে তাদের সম্পুর্ন টাকা দেওয়া হচ্ছে। বিকাল হলে এসব দোকানগুলোয় ভিড় বেঁধে যাচ্ছে। উপজেলার বিভিন্ন প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা জানায়, তাদের অভিভাবকেরা নিকটবর্তী বাজারে মোবাইলের ম্যাসেজ দেখালে ৩০০ টাকায় ১০টাকা ও ৬০০ টাকায় ১০ থেকে ২০ টাকা নিচ্ছে। তাদেরকে উপবৃত্তির টাকা দেওয়ার আগেই খরচ বাবদ এসব টাকা নগদ নেওয়া হচ্ছে বলে তাদের অভিযোগ।
এদিকে ঝিনাইদহ শহরের কয়েকটি শিওর ক্যাশ এজেন্টরা জানান, বিকাশ করলে একটি নির্দ্দিষ্ট পরিমান কমিশনের টাকা পাওয়া যায় কিন্তু শিওর ক্যাশের মাধ্যমে উপবৃত্তির টাকা উত্তোলন করলে সময় নষ্ট হয় আবার কোন টাকা ও পাওয়া যায়না।

SHARE