হাজিদের জন্য এবার স্মার্ট ছাতা

সমাজের কথা ডেস্ক॥ যেনতেন ছাতা নয়, এটি হচ্ছে স্মার্ট ছাতা। যে ছাতা কেবল ছায়াই দেয় না। যেটির আছে বিশেষ ধরনের পাখা। ছাতা খুললেই শিশিরের মতো পানি ছড়াবে। মরু অঞ্চলে এর চেয়ে সেরা আর কি-ই বা হতে পারে।
‘কাফিয়া’ নামের এ স্মার্ট ছাতাটি উদ্ভাবন করেছেন সৌদি আরবেরই বিজ্ঞানী মোহাম্মদ বিন হামেদ আস-সায়েগ। হাজিদের স্বস্তি দিতে এটি উদ্ভাবন করা হয়েছে।
আরব নিউজ জানিয়েছে, মক্কায় হাজিদের আরামের জন্য স্থাপন করা হবে এ ছাতা। ছাতাটির আয়তন হবে দৈর্ঘ্যে ৫৩ মিটার আর প্রস্থে ৫৩ মিটার। গ্রীষ্মের তাপদাহ থেকে এ ছাতা পবিত্র হজ পালন করতে আসা লাখো হজযাত্রীকে রক্ষা করবে।
ছাতাটির বৈশিষ্ট্য হল এটি ৪০ ডিগ্রি সেলসিয়াস তাপমাত্রা নিঃসরণ করতে পারে। এর ওজন মাত্র ৬৬০ গ্রাম। খুব সহজে বহন করা যায়।
ছাতাটিতে ফ্যান আছে। এছাড়া, হাতলের নিচের একটি অংশ খুলে সেখানে একটি পানির বোতল লাগিয়ে দেওয়ার ব্যবস্থা আছে। ওই পানিই ওপরে ফ্যানের কাছে উঠে গিয়ে শিশির বিন্দুর মতো গায়ে ছিটায়। প্রচন্ড গরমে ফ্যানের বাতাসের পাশাপাশি এ রকম শিশির বিন্দুর স্পর্শ গরম তো দূর করবেই, যথেষ্ট আরামও দেবে।
ছাতাটিতে আলাদা করে চার্জ দেওয়া যায়। আবার সৌরশক্তি থেকেও চার্জ নিতে পারবে।
এরই মধ্যে ছাতাটি বাণিজ্যিকভাবে বাজারজাত করা শুরু হয়েছে। যার দাম ১৬০ সৌদি রিয়াল।
কিং আবদুল আজিজ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় (কেএসিএসটি) ছাতাটি উদ্ভাবনের জন্য এরই মধ্যে মোহাম্মদ বিন হামেদকে সনদ দিয়েছে।

SHARE