0000
কোটচাঁদপুর ও মহেশপুর প্রতিনিধি॥ ডাকাতি চুরি ছিনতাই চাদাবাজিসহ একাধিক মামলার আসামি মাসুম রেজার গুলিবিদ্ধ লাশ উদ্ধার হয়েছে। মহেশপুর থানা পুলিশ বুধবার জীবনগর-কালিগঞ্জ সড়কের কাটাখালী বার মাসিয়া এলাকা থেকে লাশটি উদ্ধার করে হাসপাতাল মর্গে পাঠিয়েছে। তবে নিহতের পরিবারের দাবি পুলিশ তাকে গুলি করে হত্যা করেছে।
মহেশপুর থানার পুলিশ পরিদর্শক আকরাম হোসেন জানান, এসবিকে ইউনিয়নের চেয়ারম্যান সাজ্জাত হোসেন জানতে পেরে পুলিশে লাশের খবর দেন। ওই খবরে পুলিশ ঘটনাস্থলে ছুটে গিয়ে গুলিবিদ্ধ অবস্থায় লাশটি উদ্ধার করে। লাশের পাশে পড়ে থাকা একটি চাপাতি পেয়েছে পুলিশ। তবে কে বা কাহারা এই হত্যা করেছে তা নিশ্চিত হতে পারেনি পুলিশ। তবে কু উদঘাটনে পুলিশ কাজ শুরু করেছে বলে তিনি জানান। মাসুম রেজা কোটচাঁদপুর বনবিভাগ পাড়ার আব্দুল কাদের ওরফে সজিবের ছেলে। তাঁর বিরুদ্ধে কোটচাঁদপুর, মহেশপুর ও কালিগঞ্জ থানায় ডাকাতি, ছিনতাই, চাদাবাজি, চুরির একাধিক মামলা রয়েছে। মাসুমের গায়ে ৩টি গুলির চিহৃ দেখা গেছে। অন্যদিকে মাসুমের স্ত্রী নিতু ও খালা রাবেয়া খাতুন জানান পুলিশ গত ১৭ মার্চ রাতে জীবননগর থানার আন্দোল বাড়িয়ার নানার বাড়ি থেকে মাসুমকে আটক করে। এরপর তারা অনেক খোজাখুজি করেও মাসুমের কোন হদিস পায়নি। বুধবার তার গুলিবিদ্ধ লাশ কোটচাঁদপুর কাটাখালিতে পড়ে থাকার খবর পায়। পুলিশ তাকে গুলি করে হত্যা করেছে বলে অভিযোগ তাদের। তারা আরো বলেন, মাসুম বুদ্ধি প্রতিবন্ধী ছিলেন। দুই এক চড় থাপ্পড় মারলে তাঁর সব উলোট-পালট হয়ে যেত। তাঁর নামে কোন মামলা আছে কিনা তাদের জানা নেই। মাসুম এক কন্যা সন্তানের জনক।

SHARE